শার্শায় ব্যবসায়ী হত্যায় আটক ছয়

.ঢাকা, শুক্রবার   ২৬ এপ্রিল ২০১৯,   বৈশাখ ১৩ ১৪২৬,   ২০ শা'বান ১৪৪০

শার্শায় ব্যবসায়ী হত্যায় আটক ছয়

যশোর প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১৪:২৪ ৬ ডিসেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৪:২৮ ৬ ডিসেম্বর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

যশোরের শার্শায় নাভারন কাজীরবেড় গ্রামে বুধবার রাতে জাহিদুল ইসলাম নামে সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট ব্যবসায়ী খুন হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার ভোরে ওই গ্রামের কলাবাগান থেকে তার বস্তাবন্দী মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত জাহিদুল বেনাপোল বন্দর থানার নারায়ণপুর গ্রামের বাসিন্দা। এ ঘটনায় ছয়জনকে আটক করা হয়েছে।

আটকরা হলেন- ঝড়ু ও তার স্ত্রী বিউটি খাতুন, মেয়ে সুমী খাতুন, মুক্তার আলীর স্ত্রী রহিমা বেগম, খালিদের স্ত্রী ফেরদৌসী ও তার ছেলে আল-আমিন।

স্বজনরা জানান, জাহিদুল ইসলাম বিদেশ যাওয়ার জন্য সাত লাখ টাকা দেন নাভারন কাজীরবেড় গ্রামের ঝড়ু দালালের স্ত্রী বিউটি খাতুনক। টাকা নিয়ে বিদেশ না পাঠিয়ে তালবাহানা শুরু করে বিউটি। বুধবার টাকা দেয়ার কথা বলে বিউটি তার বাড়িতে ডাক দেন জাহিদকে। পূর্ব পরিকল্পিতভাবে বিউটি যশোর থেকে চারজন ভাড়াটে কিলার এনে বাসায় রাখে। পরে জাহিদকে ঘরে আটকে রেখে বাথরুমে নিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে মরদেহ বস্তাবন্দী করে পাশের একটি কলাবাগানে ফেলে দেয়।

শার্শা থানার ওসি এম মশিউর রহমান বলেন, জাহিদকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় ছয়জনকে আটক করা হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর