Alexa শচীনের সাফল্যের চেয়ে ব্যর্থতাই বেশি: দ্রাবিড়

ঢাকা, সোমবার   ১৯ আগস্ট ২০১৯,   ভাদ্র ৪ ১৪২৬,   ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

Akash

শচীনের সাফল্যের চেয়ে ব্যর্থতাই বেশি: দ্রাবিড়

 প্রকাশিত: ০৯:১৬ ২৩ ডিসেম্বর ২০১৭  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

ব্যর্থতাকে আপনি কীভাবে দেখছেন, সেটা আপনার সাফল্যের বড় ভিত। এই মত রাহুল দ্রাবিড়ের এবং এই মতামত প্রতিষ্ঠা করতে গিয়ে দ্রাবিড় যেমন নিজের উদাহরণ এনেছেন, তেমনই টেনে এনেছেন শচীন টেন্ডুলকারের ক্যারিয়ারকেও।

বেঙ্গালুরুর এক স্পোর্টস কনক্লেভের মঞ্চে নিজেকে তুলে ধরেন ভারতীয় ব্যাটিংয়ের এক সময়ের বড় ভরসা ‘দ্য ওয়াল’। টেস্ট এবং ওডিআই মিলিয়ে দ্রাবিড়ের মোট রান ২৪,১৭৭। মোট সেঞ্চুরি ৪৮টি। কিন্তু এই সাফল্যের থেকে তার ব্যর্থতা যে অনেক বেশি, সেটাই বোঝানোর চেষ্টা করেন তিনি।

দ্রাবিড় বলেন, আমার সময় অর্ধশতরানকে ন্যুনতম ভালো স্কোর বলে বিবেচনা করা হত। সব ফরমেটের ক্রিকেট মিলিয়ে আমি ভারতের হয়ে ৬০৪ বার ব্যাট করেছি। তার মধ্যে ৪১০ বারই ৫০ রানের গণ্ডি পেরতে পারিনি। আমি যত না সাফল্য পেয়েছি, তার থেকে বেশি ব্যর্থ হয়েছি। সাফল্যের তুলনায় আমার ব্যর্থতাই বেশি।

একই কথা স্বয়ং শচীন টেন্ডুলকারের ক্ষেত্রেও প্রায় একইভাবে প্রযোজ্য বলে উল্লেখ করেন তিনি। তিনি বলেন, আমার সময়কার সেরা ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকার। সেঞ্চুরির সেঞ্চুরি করেছে ও। কিন্তু ভারতের হয়ে সব ফরমেটের ক্রিকেট মিলিয়ে ৭৮১ বারের মধ্য ৫১৭ বারই হাফ সেঞ্চুরি করতে পারেনি। ফলে শচীনেরও সফল্যের তুলনায় ব্যর্থতাই বেশি।

কেন এমন উদাহরণ তুলে ধরলেন রাহুল? তার মতে, ভবিষ্যত প্রজন্মকে শিখতে হবে যে, ব্যর্থতাই সাফল্যের মূল ভিত্তি। ব্যর্থতার পথ ধরেই সাফল্য আসে।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস

Best Electronics
Best Electronics