লিবিয়ায় বেঁচে যাওয়া ছেলেকে ফিরে পেতে বাবার মামলা

ঢাকা, শনিবার   ১১ জুলাই ২০২০,   আষাঢ় ২৭ ১৪২৭,   ১৯ জ্বিলকদ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

লিবিয়ায় বেঁচে যাওয়া ছেলেকে ফিরে পেতে বাবার মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৪৫ ৫ জুন ২০২০  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

দুই দফা জমি বিক্রি করেও দালালদের হাত থেকে ছেলেকে রক্ষা করতে পারছেন না এক কৃষক পিতা। অবশেষে বাধ্য হয়ে মামলা করেছেন রাজধানীর পল্টন থানায়। মামলাটি গুরুত্ব বিবেচনায় তা তদন্ত করবে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ(ডিবি)। 

বৃহস্পতিবার গভীর রাতে মামলাটি করেন রাকিব নামে ওই যুবকের বাবা মান্নান মুন্সি।

তিনি জানান, মোহসিন ও মনির নামে দুই ব্যক্তির প্রলোভনে পড়ে তার ছোট ছেলে রাকিবকে লিবিয়ায় পাঠানো হয়। এজন্য জমি বিক্রি করে তিনি সাড়ে ৩ লাখ টাকা তুলে দেন তাদের হাতে। তাকে বলা হয় রাকিব সেখানে গিয়ে মোটা অঙ্কের বেতনে চাকরি পাবে। তাদের অভাব ঘুচবে। রাকিবের সঙ্গে দালাল মনিরও লিবিয়ায় যায়। ঘটনাটি ৭/৮ মাস আগের। কিন্তু রাকিব লিবিয়ায় পৌঁছানোর পর চাকরিতো দূরের কথা তাকে সেখানে জিম্মি করে আরো সাড়ে ৩ লাখ টাকা চাওয়া হয়। প্রায়ই ফোনে নির্যাতিত ছেলের কান্না শোনানো হতো তকে। সহ্য করতে না পেরে তিনি বাকি জমিটুকুও বিক্রি করে দেন। দালাল মোহসিনের হাতে তুলে দেন আরো সাড়ে ৩ লাথ টাকা। কিন্তু তারপরও মুক্তি মেলেনি ছেলের। 

সম্প্রতি লিবিয়ায় বাংলাদেশিদের উপর মানবপাচারকারীদের গুলির ঘটনার সময় সেখানে রাকিবও উপস্থিত ছিলেন। ওই ঘটনায় প্রাণ হারায় ২৬ বাংলাদেশি। কিন্তু ভাগ্যক্রমে সেখান থেকে পালিয়ে যেতে সক্ষম হন তিনি। পরে ফোনে পরিবারকে ঘটনাটি জানান তিনি।

রাকিবের বাবা আরো জানান, গুলির ঘটনার পর একবারই ছেলের সঙ্গে তার কথা হয়েছে। এরপর তার সঙ্গে কোনো যোগাযোগ করতে পারছেন না তারা। 

তিনি ১৬ জনের নাম উল্লেখ করে মানবপাচার ও দমন আইনে মামলাটি করেন। যে করেই হোক ছেলেকে জীবিত ফিরে পাওয়ার পাশাপাশি অপরাধীদেরর উপযুক্ত শাস্তির দাবি জানান এই উদ্বিগ্ন পিতা।

ঢাকা মহানগর পুলিশের জনসংযোগ কর্মকর্তা উপ-পুলিশ কমিশনার মো. ওয়ালিদ হোসেন মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, মামলাটি তদন্ত করবে ডিবি পুলিশ।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসসি/এসআই