লক্ষীছড়িতে অগ্নিদগ্ধ শিশু আসমার পাশে সেনাবাহিনী

.ঢাকা, বুধবার   ২৪ এপ্রিল ২০১৯,   বৈশাখ ১০ ১৪২৬,   ১৮ শা'বান ১৪৪০

লক্ষীছড়িতে অগ্নিদগ্ধ শিশু আসমার পাশে সেনাবাহিনী

লক্ষীছড়ি প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১৭:৪৬ ৯ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৭:৪৬ ৯ জানুয়ারি ২০১৯

লক্ষীছড়ি জোন কমান্ডার লে: কর্ণেল মো: মিজানুর রহমান মিজান রিজিয়ন কমান্ডারের পক্ষে আহত আসমা আক্তারের মা নুরজাহান বেগমের হাতে চিকিৎসার অর্থ তুলে দিচ্ছেন

লক্ষীছড়ি জোন কমান্ডার লে: কর্ণেল মো: মিজানুর রহমান মিজান রিজিয়ন কমান্ডারের পক্ষে আহত আসমা আক্তারের মা নুরজাহান বেগমের হাতে চিকিৎসার অর্থ তুলে দিচ্ছেন

খাগড়াছড়ির লক্ষ্মীছড়িতে অগ্নিদগ্ধ শিশু আসমা আক্তারের পাশে দাঁড়িয়েছে সেনাবাহিনী। দরিদ্র মা-বাবার পক্ষে যখন চিকিৎসার অর্থ সংগ্রহ করা অসম্ভব হয়ে দাঁড়ায় ঠিক তখনই শিশু আসমা আক্তারের পাশে দাঁড়ায় সেনাবাহিনী লক্ষীছড়ি জোন ও গুইমারা রিজিয়ন। ২৪ আর্টিলািরি ব্রিগেড গুইমারা রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এ কে এম সাজেদুল ইসলাম অগ্নিদগ্ধ শিশু আসমা আক্তারের চিকিৎসায় ২০ হাজার টাকা অর্থ সহায়তা দেন।

মঙ্গলবার লক্ষীছড়ি জোন কমান্ডার লে: কর্ণেল মো: মিজানুর রহমান মিজান রিজিয়ন কমান্ডারের পক্ষে আহত আসমা আক্তারের মা নুরজাহান বেগমের হাতে চিকিৎসার অর্থ তুলে দেন। এর আগে লক্ষীছড়ি জোনের পক্ষ থেকে তাৎক্ষনিক আরো ১০ হাজার টাকা চিকিৎসা বাবদ অনুদান প্রদান করা হয়।

গত ৩ জানুয়ারি কুপির আগুনে দগ্ধ হয় শিশু আসমা আক্তার। ঘটনার পর তাকে দ্রুত সেনাবাহিনীর ডাক্তার প্রাথমিকি চিকিৎসা দিয়ে লক্ষীছড়ি উপজেলা হাসপাতালে পাঠায়। অবস্থা মারাত্বক হওয়ায় লক্ষীছড়ি জোনের সেনাবাবহিনীর সহায়তায় তাকে দ্রুত চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালো পাঠানো হয়।

চিকিৎসকরা জানান, শিশু আসমা আক্তারের পেটের নিচের অংশে প্রায় ৪০ শতাংশ পুড়ে গেছে। বর্তমানে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বার্ন ইউনিটে চিকিৎসা নিচ্ছে শিশু আসমা আক্তার।

ডেইলি বাংলাদেশ/এস