Alexa রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে বাড়ছে না নতুন রুট

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১৭ অক্টোবর ২০১৯,   কার্তিক ২ ১৪২৬,   ১৭ সফর ১৪৪১

Akash

রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে বাড়ছে না নতুন রুট

আদিব হোসাইন, বেরোবি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:৫৯ ৭ অক্টোবর ২০১৯  

ডেইলি বাংলাদেশ

ডেইলি বাংলাদেশ

বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার ১১ বছরেও বাসের রুট সংখ্যা বাড়াতে পারেনি। একই রুটে দীর্ঘদিন থেকে বাস চলায় শিক্ষার্থীদের মাঝে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।

জানা যায়, ৬ মাস পরপর প্রতি সেমিস্টারে ভর্তি ও ফরম পূরণের সময় বাস ভাড়া বাবদ ও কেন্দ্রীয় ছাত্রসংসদ বাবদ প্রত্যাক শিক্ষার্থীর কাছ থেকে একটা বড় অংশ কেটে নেয়া হয়।

প্রতি সেমিস্টারে অনার্স-মাস্টার্সসহ ৫ ইয়ারের ৬৫৭৫ জন শিক্ষার্থীর কাছ থেকে শুধু বাস ভাড়া বাদ ১৯ লাখ ৭২ হাজার ৫০০ টাকা নেয়া হয়। এত বেশি অংকের টাকা হওয়ার পরেও দীর্ঘদিন থেকে বাসের রুট সংখ্যা না বাড়ায় শিক্ষার্থীদের মাঝে নানা গুঞ্জনের সৃষ্টি হয়েছে।

২০১০ সালে শিক্ষার্থীদের জন্য শিমু শাহেদ নামের একটি বাস ভাড়ায় চালাতে শুরু করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। তখন এই বাসটির রুট ছিলো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শাপলা হয়ে টার্মিনাল হয়ে চেকপোস্ট ও ডিসি মোড় হয়ে ক্যাম্পাস।
গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ফিরোজ মাহমুদ বলেন, অনেক শিক্ষার্থীই আসেন পীরগঞ্জ, মিঠাপুকুর, পাগলাপীর, তিস্তা থেকে। তারা ক্যাম্পাসে যাতায়াত করে বাসে। ক্যাম্পাস টু তিস্তা, ক্যাম্পাস টু পাগলাপীর, ক্যাম্পাস টু পীরগাছা এবং ক্যাম্পাস টু মিঠাপকুর রুটে কোনো বাস নেই। এসব রুটে বাস থাকলে শিক্ষার্থীদের খরচ বেঁচে যাবে।   

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষক বলেন, এ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে আসা অধিকাংশ শিক্ষার্থীই মধ্যবিত্ত পরিবারের। প্রতি মাসে তাদের মাসিক খরচ দিতে পরিবারকে হিমশিম খেতে হয়। তাই শিক্ষার্থীদের কথা বিবেচনা করে বাসের রুট সংখ্যা বাড়ানো উচিৎ।
 
এ ব্যাপারে পরিবহন পুলের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিনুর রহমান বলেন, রুট সংখ্যা বাড়ানো নিয়ে পূজার ছুটিতে একটা সার্ভে করা হবে। আশা করছি খুব শিগগিরই রুট সংখ্যা বাড়ানো হবে।

২ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহনপুলে আরো একটি নতুন বাস যুক্ত হয়। এ নিয়ে শিক্ষার্থীদের যাতায়াতের জন্য ৯টি বাস বিশ্ববিদ্যালয় পরিবহনপুলে যুক্ত হলো।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম