Exim Bank Ltd.
ঢাকা, রবিবার ২২ জুলাই, ২০১৮, ৭ শ্রাবণ ১৪২৫

রক্তশূন্যতা হওয়ার কারণ এবং প্রতিকার

স্বাস্থ ও চিকিৎসা ডেস্কডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম
ফাইল ছবি

আমাদের শরীরের অতি প্রয়োজনীয় উপাদান হচ্ছে আয়রন বা লৌহ। এটা মূলত লোহিত রক্তকনিকার মধ্যে থাকে এবং অক্সিজেন পরিবহন করার মাধ্যমে দেহের কোষকে সতেজ রাখে।

আয়রনের অভাবে দেহে রক্তশূন্যতা দেখা দেয়। বাংলাদেশে প্রতি ১০০ জনে ৫৫.৩ জন রক্তশূন্যতায় ভোগেন। এর মধ্যে ৩৬.৭ জন পুরুষ এবং ৬৬.৩ জন নারী। নারীদের মধ্যে ৪৩.৪ জন আবার প্রজননক্ষম নারী।

রক্তশূন্যতার উপসর্গগুলো হচ্ছে-(১) শরীর ফ্যাকাসে হয়ে যাওয়া(২) দুর্বলতা অনুভব করা(৩) বুক ধড়-ফড় করা(৪) সামান্য পরিশ্রমেই হাঁপিয়ে উঠা(৫) ব্যায়ামের পরে শ্বাসকষ্ট অনুভব হওয়া(৬) কানে ঝিঁ ঝিঁ শব্দ শোনা(৭) খাবারে অরুচি ও ক্ষুধামন্দা(৮) ভঙ্গুর নখ বা নখের আকৃতি চামচের মত হওয়া(৯) কাজকর্ম বা পড়ালেখায় মনোযোগের অভাব

রক্তশূন্যতার কারণসমূহ: রক্তশূন্যতার কারণগুলোকে মূলত তিনভাগে ভাগ করা যায়। প্রথমত, খাদ্য তালিকায় আয়রনসমৃদ্ধ খাবার পর্যাপ্ত পরিমাণে না থাকা। দ্বিতীয়ত, বিভিন্ন কারনে শরীর থেকে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ। রক্তক্ষরণের প্রধান কারনগুলো হচ্ছে-

(১) মাসিকের সময় অতিরিক্ত রক্তপাত। আমাদের দেশে নারীদের রক্তস্বল্পতার জন্য এটাই প্রধানত দায়ী।(২) শরীরে কৃমির সংক্রমন।(৩) পরিপাকতন্ত্রে আলসার বা এ জাতীয় সমস্যা।(৪) অপারেশন বা জখম পরবর্তী রক্তপাত।(৫) অতিরিক্ত ব্যথানাশক ওষুধ ব্যবহারে পাকস্থলী থেকে রক্তক্ষরণ।(৬) পাইলস বা হেমোরয়েডস রোগ।

তৃতীয়ত, শরীরে আয়রন বা লৌহের চাহিদা স্বাভাবিকের চাইতে বৃদ্ধি পাওয়া। সাধারণত গর্ভকালীন সময়ে, নবজাতককে স্তন্যদানের সময়ে কিংবা শিশুর শারীরিক বৃদ্ধির সময় শরীরে আয়রনের চাহিদা বৃদ্ধি পায়। রক্তশূন্যতা থেকে বাঁচার উপায়-

(১) আয়রনসমৃদ্ধ খাবার, ফলমূল ও শাকসবজি প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় রাখতে হবে। লালশাক, পালংশাক, মূলা, মিষ্টি কুমড়া, কুমড়ার বীজ, কচু, কাঁচা কলা, পাকা কলা, দুধ, মলা-ঢেলাসহ সকল ছোট মাছ এবং সামুদ্রিক মাছে প্রচুর পরিমাণে আয়রন থাকে। এগুলো খাবার অভ্যাস করতে হবে।

(২) মহিলাদের মাসিকের সময়ে অতিরিক্ত রক্তপাতের কারন নির্ণয় করা ও তার জন্য যথাযথ চিকিৎসা গ্রহণ করা সব বয়সেই কৃমিনাশক ওষুধ নিয়মিত খাওয়া এবং পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকা।

(৩) গর্ভাবস্থায়, বাড়ন্ত বয়সে এবং অপরিণত শিশুর ক্ষেত্রে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি মাত্রায় আয়রনসমৃদ্ধ খাবার প্রদানের দিকে নজর দেয়া।

(৪) ব্যথানাশক ওষুধের অতিরিক্ত এবং মাত্রাতিরিক্ত ব্যবহার পরিহার করা।

(৫) এসবের পাশাপাশি সচেতনতা বৃদ্ধি প্রয়োজন।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস

আরও পড়ুন
সর্বাধিক পঠিত
চার মাসের ‘গর্ভবতী’ বুবলী!
বিশ্বের সবচেয়ে বড় ভিসা সেন্টার এখন ঢাকায়
শাকিবের সঙ্গে বিয়ে, যা বললেন নায়িকা বুবলী
ক্যামেরায় সম্পূর্ণ নগ্ন হয়েছেন এই অভিনেত্রীরা, কারা এরা?
বিদ্যুৎ বিল কমিয়ে নেয়ার কিছু টিপস
ভেঙে গেলো পূর্ণিমার সংসার, পাল্টা জবাবে যা বললেন নায়িকা
মায়ের জিন থেকেই শিশুর বুদ্ধি বিকশিত হয়!
ব্যর্থ হলো মার্কিন ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র বিধ্বংসী পরীক্ষা
এইচএসসি'র ফল জানা যাবে যেভাবে
ধর্ষণের কবলে মৌসুমী হামিদ, ধর্ষক গাড়িচালক!
চীনের মধ্যস্থতায় তথ্য আদান-প্রদানে সম্মত পাকিস্তান-আফগানিস্তান
বিশ্বকাপের সব গোল্ডেন বল জয়ীরা
গৌরিকে নিয়ে ভক্তের প্রশ্ন, উত্তর দিলেন শাহরুখ!
যেসব দেশে কোনো নদী নেই
মহান আল্লাহ তাআলা যাদের প্রতি সন্তুষ্ট
আমি বিশ্বের সেরা ক্লাবটিই বেছে নিয়েছি
কাতার বিশ্বকাপ নিয়ে কিছু ভবিষ্যতবাণী!
নিখোঁজের ৩৭ বছর পর ফিরে এসেছিলো যে বিমান
মীর জাফর ও তার সঙ্গীদের শেষ পরিণতি
ভাত খাওয়ার পর যেসব ভুল ডেকে আনছে মৃত্যু
শিরোনাম:
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জগন্নাথ হলের নির্মাণাধীন ভবন থেকে পড়ে ২ শ্রমিকের মৃত্যু বঙ্গোপসাগরে ট্রলার ডুবি: ১৭ জেলে নিখোঁজ