যেসব দেশে পানির চেয়ে কম দামে বিক্রি হয় পেট্রল

ঢাকা, সোমবার   ১৭ জুন ২০১৯,   আষাঢ় ৩ ১৪২৬,   ১২ শাওয়াল ১৪৪০

যেসব দেশে পানির চেয়ে কম দামে বিক্রি হয় পেট্রল

সাতরঙ ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১১:৫৬ ২০ মে ২০১৯  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

পেট্রল বহুল ব্যবহৃত জীবাশ্ম জ্বালানি, যা প্রাকৃতিকভাবে পাওয়া ক্রুড অয়েল বা জ্বালানি তেল পরিশোধনের মাধ্যমে পাওয়া যায়। আধুনিক নিঃশব্দ ও ছোট গাড়ির প্রায় সবগুলোই পেট্রল কিংবা অকটেন চালিত। এটি বিশ্বের সবচেয়ে দামি জ্বালানিও বটে। অথচ সেই পেট্রলই কি-না কিছু দেশে পানির চেয়েও কম দামে পাওয়া যায়!

লিবিয়া: বিশ্বের নবম বৃহত্তম পেট্রল উৎপাদক দেশ লিবিয়া। দেশটিকে এক লিটার পেট্রল পাওয়া যায় ৯.০৪ টাকায়।

সুদান: দেশটিতে পেট্রলের দাম অনেকটাই কমেছে। এখানে প্রতি লিটার পেট্রলের দাম ১১.৮০ টাকা।

সৌদি আরব: দেশটি বিশ্বের সবচেয়ে বেশি খনিজ তেল উৎপাদনকারী এবং সবচেয়ে বেশি পেট্রল রপ্তানিকারক দেশ হিসেবে খ্যাত। সৌদি আরবে প্রতি লিটার পেট্রল বিক্রি হয় মাত্র ৪৭ টাকায়।

ভেনেজুয়েলা: দেশটিতে এখন মাত্র ০.০১ মার্কিন ডলারে এক লিটার পেট্রল পাওয়া যায়। দেশটির অর্থনীতির ৫০ শতাংশ নির্ভর পেট্রল বেচার টাকার ওপর।

ইরান: ইরানে একলিটার পেট্রল কিনতে বাংলাদেশি মুদ্রায় খরচ হয় মাত্র ২৪ টাকা।

তুর্কমেনিস্তান: মানুষরা প্রতিমাসে জনপ্রতি ১২০ লিটার পেট্রল বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারেন। কিন্তু দেশটিতে পেট্রলের দাম নির্ধারিত নয়। ১২০ লিটারের বেশি দরকার হলে প্রতি লিটারে ৩৬ টাকা করে দিতে হয়।

বাহরাইন: পঞ্চম বৃহত্তম তেল উৎপাদক দেশ এটি। এখানে প্রতি লিটার পেট্রলের দাম ১২.৯৮ টাকা।

কুয়েত: বিশ্বের পঞ্চম বৃহত্তম তেলের রিজার্ভ রয়েছে এদেশে। প্রায় ১০ হাজার ৪০০ কোটি ব্যারেল তেল মজুদ আছে দেশটিতে। প্রতি লিটার পেট্রলের খুচরা মূল্য ২৯.৫০ টাকা।

কাতার: তেল উৎপাদনের দিক থেকে সপ্তম বৃহত্তম দেশ কাতার। দেশটির আয়ের প্রধান উৎসও তেল। ১৫০০ কোটি ব্যারেল তেলের মজুদ আছে দেশটিতে। প্রতি লিটার পেট্রলের দাম ৪৬.৩৫ টাকা।

আলজেরিয়া: আফ্রিকার বৃহত্তম তেল উৎপাদক এবং বিশ্বের ১০ম বৃহত্তম তেল উৎপাদক। প্রতিদিন ১২ লাখ ব্যারেল তেল উৎপাদন করে দেশটি। দেশটির আয়ের ৬০ শতাংশ আসে তেল থেকে। প্রতি লিটার পেট্রলের দাম ২৮.৬৫ টাকা।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিআরএইচ/এনকে