মহাসমাবেশের পর জাপার চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকা প্রকাশ

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২০ জুন ২০১৯,   আষাঢ় ৮ ১৪২৬,   ১৫ শাওয়াল ১৪৪০

মহাসমাবেশের পর জাপার চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকা প্রকাশ

 প্রকাশিত: ১৪:২৭ ৮ অক্টোবর ২০১৮   আপডেট: ১৭:৪৩ ৮ অক্টোবর ২০১৮

রংপুরের সেনপাড়া বাসভবন স্কাইভি’য়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন এরশাদ  ছবি- ডেইলি বাংলাদেশ

রংপুরের সেনপাড়া বাসভবন স্কাইভি’য়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছেন এরশাদ ছবি- ডেইলি বাংলাদেশ

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়ার সব ধরনের প্রস্তুতি শেষ করা হয়েছে। এরইমধ্যে প্রার্থী তালিকাও করা হয়েছে চূড়ান্ত। তিনি বলেন, ২০ অক্টোবর মহাসমাবেশের পর প্রকাশ করা হবে ৩শ আসনে দলের প্রার্থী তালিকা। 

সোমবার দুপুরে দুই দিনের সফরে রংপুর পৌঁছে নগরীর সেনপাড়া বাসভবন স্কাইভি’য়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে তিনি এসব কথা জানান।

নির্বাচন এলেই এরশাদ-রওশন এরশাদ দ্বন্দ কেন বেড়ে যায়, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে এরশাদ বলেন, আমাদের মধ্যে কোনো দ্বন্দ নেই। আমার স্ত্রী(রওশন) ও ছোট ভাইয়ের (জিএম কাদের) সঙ্গে কোনো দ্বন্দ্ব-বিভেদ নেই। আমরা সবাই এক। আমরা একসঙ্গে নির্বাচন করবো। এতে কোনো ব্যক্তিকরণ নেই, আছে দলীয়করণ, নেই কোনো বিভেদ। জাতীয় পার্টি এখন আগের চেয়ে অনেক বেশি শক্তিশালী। ক্ষমতায় যাওয়াই আমাদের লক্ষ্য।

তিনি বলেন, রংপুর অঞ্চল জাতীয় পার্টির দুর্গ। লাঙ্গলের দুর্গ ভাঙার সাধ্য কারো নেই।

জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া সম্পর্কে এরশাদ বলেন, জাতীয় ঐক্যে আমি নেই। তাই কোনো মন্তব্যও নেই। সাংবিধানিক দায়বদ্ধতা থেকে সঠিক সময়ে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে হবে। এতে আশঙ্কার কিছু নেই।

এসময় এরশাদের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য মেজর অবসরপ্রাপ্ত খালেদ আখতার, রংপুর জেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক এসএম ফখরুজ্জামান জাহাঙ্গীর, মহানগরের সাধারণ সম্পাদক এস এম ইয়াসির, জেলা জাপার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাজী আব্দুর রাজ্জাক, খতিবার রহমান, সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট মোকাম্মেল হক চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মুন্সি আব্দুল বারী, শামীম সিদ্দিকী ও প্রচার সম্পাদক মমিনুল ইসলাম রিপন প্রমুখ।

এর আগে সকালে এরশাদের হাতে ফুল দিয়ে শতাধিক নেতাকর্মী নিয়ে জাতীয় পার্টিতে যোগ দেন প্রাইম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ডা. রূপক।

ডেইলি বাংলাদেশ/এলকে