Alexa মধ্যপথে লক্ষ্য হারা পাকিস্তান, নেই ৫

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৩ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ৯ ১৪২৬,   ২০ জ্বিলকদ ১৪৪০

মধ্যপথে লক্ষ্য হারা পাকিস্তান, নেই ৫

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:৪৪ ১৬ জুন ২০১৯  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

বিশাল রান তাড়া করতে গিয়ে শুরুতেই ধাক্কা খেল পাকিস্তান। ভিজয় শংকরের বলে এলবিডব্লিউ’র ফাঁদে পড়ে আউট হন ইমাম উল হক। আউট হবার আগে তিনি ১৮ বলে করেন ৭ রান। 

ক্রিকেট বিশ্বে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ মানেই রোমাঞ্চ। দু’দলের লড়াই দেখতে মুখিয়ে থাকেন বিশ্ববাসী। বিশ্বকাপের ২২ তম ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছে চিরপ্রতিদন্দ্বী পাক-ভারত। বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৩টায় মাঠে নামে দুই পরাশক্তি। 

টস জিতে ভারতকে ব্যাটে পাঠায় পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। টপ অর্ডারের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে বড় সংগ্রহ পেয়েছে বিরাট কোহলির দল। 

ভারতীয় ইনিংসের ২০ বল বাকী থাকলেই বৃষ্টি আসে। ফলে কিছু সময় খেলা বন্ধ থাকে। নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ভারতের সংগ্রহ ৫ উইকেটে ৩৩৬ রান।  

জবাবে ব্যাট করতে নেমেই ইমামের উইকেট হারায় পাকিস্তান। তার পরই ফখর জামান ও বাবর আজমের শতক করা জুটি তৈরি হয়। কিন্তু সে জুটি বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। কুলদ্বীপ ভাঙেন সে জুটি। বাবর ৪৮ রানে কুলদ্বীপের বলে বোল্ড আউট হয়ে সাজ ঘরে ফিরেন। তখন দলের রান ১১৭। এর পরপরই আরো দুই উইকেট হারায় পাকিস্তান। শোয়েব মালিক ০ রানে হাফিজ ৯ রানে পান্ডিয়ার বলে কুপোকাত হন। এর মধ্যে ৫ উইকেট হারিয়ে পুরোটাই ব্যাকফুটে পাকিস্তান। 

এর আগে ম্যানচেস্টারে ওল্ড ট্রাফোর্ড ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাটে নামে রহিত শর্মা ও কেএল রাহুল।  শুরু থেকেই বেশ হিসেব করে খেলতে শুর করে ভারত। প্রথম ওভার মেডেন নেন আমির। এরপর থেকে শুরু হয় ভারতের খেলা।

ব্যাটে বলের টাইমিং এ দলীয় অর্ধশত পার করে ওপেনিং জুটি। এরপর রোহিত ও রাহুলের ব্যাটে শতক ও পার করে তারা। দুই ব্যাটসম্যানই তুলে নেন ব্যক্তিগত অর্ধশত।

২৩ ওভারে ওয়াহাব রিয়াজের বলে বাবর আজমের কাছে ক্যাচ তুলে দেন রাহুল(৫৭)। আর এতে ১৩৬ রানের ওপেনিং জুটি ভাঙে ভারতের। এরপর ব্যাট করতে আসেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। 

এদিকে নিজের ক্যারিয়ারের ২৪ তম শতক তুলে নেন ওপেনার রোহিত শর্মা। এভাবেই রোহিত-কোহলিতে দলীয় দুইশত পার করে ভারত। ১৪০ করে হাসান আলীর বলে ফিরে যান রোহিত শর্মা। 

তার জায়গায় নামা হার্দিক পান্ডিয়া ১৯ বলে ২৬ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলে বিদায় নেন। একপ্রান্ত আগলে রেখে রান করতে থাকলেও আমিরের বলে ৭৭ রান করে প্যাভিলয়নে ফেরেন কোহলি।  কেদার ৯ ও শংকর ১৫ রানে অপরাজিত থাকেন। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল/সালি