Alexa বেড়েছে সেবার মান, কমেছে ভোগান্তি

ঢাকা, শুক্রবার   ১৫ নভেম্বর ২০১৯,   কার্তিক ৩০ ১৪২৬,   ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

Akash

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল

বেড়েছে সেবার মান, কমেছে ভোগান্তি

ফাতিন ইশরাক নিয়ন, রাজশাহী ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৪৬ ৭ নভেম্বর ২০১৯  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আগের চেয়ে বেড়েছে সেবার মান। একই সঙ্গে কমেছে রোগী ও স্বজনদের ভোগান্তি।

সেবা গ্রহীতারা জানান, আগে ট্রলি নিতে হাসপাতালের অস্থায়ী কর্মীদের টাকা দিতে হতো। টাকা না দিলে চড়াও হতেন তারা। এখন ট্রলির জন্য যেতে হয় জরুরি বিভাগে। সেখানে খাতায় রোগীর নাম লিখিয়ে টাকা জমা দিয়ে ট্রলি নিতে হয়। আবার ট্রলি জমা দিলে টাকা ফেরত দেয়া হয়।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়, আগে দৈনিক মজুরি ভিত্তিতে অস্থায়ী কর্মীরা ট্রলি টানতেন। তারা ইচ্ছেমতো রোগীর স্বজনদের কাছ থেকে টাকা আদায় করেন। রোগীদের হয়রানি কমাতে এ পদ্ধতিতে ট্রলি দেয়া হচ্ছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, ১৫টি ট্রলি হাসপাতালে ঢোকার মুখে সাজিয়ে রাখা হয়েছে। রোগীর স্বজনরা ট্রলি বের করে রোগীকে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাচ্ছেন। আবার নির্ধারিত স্থানে ট্রলি জমা দিয়ে টাকা ফেরত নিয়ে যাচ্ছেন।

নগরীর ভেড়িপাড়ার বাসিন্দা মো. শাহীন জানান, রামেকে আগের মতো হয়রানির শিকার হতে হয় না। হাসপাতাল কর্মীরাও দুর্ব্যবহার করে না। দালালদের দৌড়াত্ম অনেকটাই কমেছে।

নওগাঁর পোরশা থেকে আসা মো. জুয়েল বলেন, রামেকে ভোগান্তি আগের চেয়ে অনেক কমেছে। ট্রলি জমা দিতে গেলে এখনো কিছুটা হয়রানির শিকার হতে হয়। আনসার সদস্যরা রোগীর স্বজনদের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করেন।

রামেকের উপ-পরিচালক সাইফুল ফেরদৌস বলেন, প্রতিদিন এক হাজার আটশ রোগী হাসপাতালে আসেন। তাদের জন্য ১৫টি ট্রলি পর্যাপ্ত নয়। আমরা আরো ট্রলির ব্যবস্থা করছি। সেবার মান আরো বাড়ানো হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর