বিএনপি নেতা মোজাম্মেলের মৃত্যুতে খালেদার শোক

ঢাকা, রোববার   ২৬ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ১২ ১৪২৬,   ২০ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

বিএনপি নেতা মোজাম্মেলের মৃত্যুতে খালেদার শোক

 প্রকাশিত: ১১:০১ ৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭   আপডেট: ১৯:১১ ৫ সেপ্টেম্বর ২০১৭

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য, চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য হাজী মোজাম্মেল হকের (৮৬) মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া।

সোমবার (৪ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা ৬টায় মোজাম্মেল হক বার্ধক্যজনিত কারণে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন (ইন্না লিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাইহে রাজেউন)।

গণমাধ্যমে পাঠানো এক শোকবার্তায় বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, ‘মরহুম হাজী মোজাম্মেল হক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের দেশপ্রেম, নীতি ও আদর্শে উদ্বুদ্ধ হয়ে বিএনপি’র রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত হন এবং আমৃত্যু দলকে সুসংগঠিত ও শক্তিশালী করতে বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখেন। তিনি জনপ্রিয় রাজনীতিবিদ এবং সফল শিল্পোদ্যোক্তা হিসেবে অত্যন্ত সুপরিচিত ছিলেন।’

খালেদা জিয়া বলেন, ‘জনপ্রতিনিধি হিসেবে জনকল্যাণমূলক কাজে তিনি গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছেন। সেকারণে এলাকাবাসী তাকে পর পর তিনবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত করেছেন। বাংলাদেশি জাতীয়তাবাদের দর্শনই ছিলো তার রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডের মূল চলিকাশক্তি। মানুষের হারানো ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনা, বাক ও ব্যক্তি স্বাধীনতা প্রতিষ্ঠাসহ সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে তিনি ছিলেন সক্রিয় অগ্রসৈনিক।’

তিনি বলেন, ‘মোজাম্মেল হক কোনো স্বৈরাচারীর রক্তচক্ষুকে কখনোই ভয় পাননি। সফল শিল্পপতি হিসেবে শিল্প কারখানা প্রতিষ্ঠিত করে বহু বেকার মানুষের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করেছেন। রাজনীতি ও শিল্প প্রতিষ্ঠার পাশাপাশি গণমাধ্যমকে শক্তিশালী করার জন্য তিনি রেডিও টুডে প্রতিষ্ঠা করেছেন। একজন সমাজ সেবক হিসেবে এলাকার মানুষ তাকে চিরদিন শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘দেশের চলমান চরম সংকটে তার মতো একজন অভিজ্ঞ ও আদর্শবান রাজনীতিবিদের চিরবিদায়ে আমি গভীরভাবে ব্যথিত ও মর্মাহত হয়েছি। আমি মরহুম হাজী মোজাম্মেল হকের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি এবং শোকাহত পরিবারের সদস্যবর্গ, আত্মীয়-স্বজন, গুণগ্রাহী ও শুভানুধ্যায়ীদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাচ্ছি।’

ডেইলি বাংলাদেশ/টিআরএইচ

Best Electronics