Alexa বাজারে নতুন পেঁয়াজ, কমছে দাম

ঢাকা, শনিবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ২২ ১৪২৬,   ০৯ রবিউস সানি ১৪৪১

বাজারে নতুন পেঁয়াজ, কমছে দাম

ফরিদপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৪৪ ১৭ নভেম্বর ২০১৯  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

বাজারে উঠতে শুরু করেছে মুড়িকাটা পেঁয়াজ। এতে দুদিনের ব্যবধানে ফরিদপুরের বাজারগুলোতে কেজিপ্রতি পেঁয়াজের দাম কমেছে ৬২ টাকা।

গত দুদিন আগেও কেজিপ্রতি পেঁয়াজ ২৩৭ টাকায় পাইকারি বিক্রি হলেও বর্তমানে তা ৬২ টাকা কমে প্রতিকেজি ১৭৫ টাকায় নেমে এসেছে। আর নতুন মুড়িকাটা পেঁয়াজ প্রতিকেজি পাইকারি বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকা থেকে ১৩০ টাকা দরে।

এখন থেকে দাম আর বাড়বে না বলে ধারণা করছেন পেঁয়াজ চাষীরা।

ফরিদপুরের পেঁয়াজের জন্য খ্যাত সালথা ও নগরকান্দায় বাজার ঘুরে এমন তথ্য জানা গেছে।

পেঁয়াজ চাষীরা জানান, বেশি দাম পাওয়ার আশায় অনেক চাষী তাদের ক্ষেত থেকে আগাম মুড়িকাটা পেঁয়াজ উঠাতে শুরু করেছেন। অনেক চাষী পেঁয়াজের পাশাপাশি পেঁয়াজ গাছের পাতা  বাজারে আনছেন।  

বোয়ালমারী উপজেলার চিতার বাজার, ময়েনদিয়া বাজার, জয় পাশা পেঁয়াজ বাজারের ব্যবসায়ীরা জানান, শনিবার বাজার শুরুর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে চাষীরা আগাম জাতের মুড়িকাটা পেঁয়াজ নিয়ে হাজির হন। এ সময় ক্রেতারা ওই পেঁয়াজের দিকে ঝুঁকে পড়েন।

এ এলাকার পেঁয়াজ চাষী হাসেম মোল্লা বলেন, হঠাৎ করে শনিবার থেকে এই বাজারে পেঁয়াজের দর মণ প্রতি দুই হাজার টাকা কমে গেছে।

চিতার বাজারের বণিক সমিতির সভাপতি মওলা বিশ্বাস জানান, গত দুই দিন ধরে পেঁয়াজের দর কমছে।

এদিকে জেলার সালথা উপজেলার মাঝারদিয়া, বালিয়াগট্টি বাজারে পুরনো পেঁয়াজ সর্বোচ্চ সাড়ে সাত হাজার টাকায় এবং মুড়িকাটা পেঁয়াজ সাড়ে ৫ হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছে।

জেলা কৃষি বিভাগ জানায়, জেলার ৯ উপজেলাতে পেঁয়াজ মৌসুমে ৪ লাখ ৬০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজের উৎপাদন হয়। চলতি শীত মৌসুমের আগাম জাতের মুড়িকাটা পেঁয়াজের উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ৬০ হাজার মেট্রিক টন। এ ছাড়াও এ জেলায় হালি পেঁয়াজ ও দানা পেঁয়াজও উৎপাদন হয়।

ফরিদপুরের ডিসি অতুল সরকার সাংবাদিকদের জানান, চাষীরা অল্প কিছু দিনের মধ্যেই ঘরে তুলতে পারবে তাদের পেঁয়াজ। আর এতে করে পেঁয়াজের বাজার স্বাভাবিক হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে