Alexa বাকি আর মাত্র পাঁচ দিন

ঢাকা, বুধবার   ২১ আগস্ট ২০১৯,   ভাদ্র ৬ ১৪২৬,   ১৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

Akash

বাকি আর মাত্র পাঁচ দিন

 প্রকাশিত: ১৫:১৭ ৮ জুন ২০১৮   আপডেট: ১১:২৯ ৯ জুন ২০১৮

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

ফুটবল প্রেমীদের অপেক্ষার পালা ধীরে ধীরে শেষ হতে যাচ্ছে। আর মাত্র ৫ দিন পর ৬ দিনের দিন পর্দা উঠবে ফুটবল বিশ্বের সব থেকে বড় আসর রাশিয়া বিশ্বকাপ ২০১৮।

এবারের একুশতম আসরের  স্বাগতিক দেশ রাশিয়। বিশ্বকাপের  উদ্বোধন এবং ফাইনাল ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে রাশিয়ার মস্কোতে অবস্থিত লুঝনিকি স্টেডিয়ামে। বিশ্বকাপকে সামনে রেখে সব দল ই তাদের প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশের পাঠকদের জন্য আজ ব্রাজিল দলের তথ্য তুলে ধরা হলো-

বিশ্ব ফুটবলের অন্যতম দল ব্রাজিল। ফুটবলের জনক পেলে এই ব্রাজিলেরই খেলোয়াড়।তাই ফুটবলে ব্রাজিলের আধিপত্য বেশ ভালোভাবেই।

তবে ব্রাজিল দলের ২৩ জনের প্রত্যেকেই আলাদাভাবে যথেষ্ট প্রতিভাধর হলেও সম্মিলিতভাবে তারা এখনো একটা দল হিসেবে গড়ে উঠতে পারেনি,বলে মনে করেন  ব্রাজিল ইতিহাসের শ্রেষ্ঠতম তারকা পেলে।  এই ব্রাজিল দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে বিশ্বজয়ী সেই রসায়নটা খুঁজে পাচ্ছেন না তিনি।

রাশিয়া বিশ্বকাপে লিভারপুলের অ্যানফিল্ডে  ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে ২-০ গোলে জয় পায় পাঁচ বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা।

১৭ জুন থেকে সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করবে ব্রাজিল।

পাঁচ বারের বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ব্রাজিলের যত রেকর্ড

১. বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল। পাঁচটি শিরোপা জিতেছে দলটি।

২. বিশ্বকাপের সবগুলো আসরে অংশ নেয়া একমাত্র দল ব্রাজিল।

৩. বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি কোয়ার্টার ফাইনাল খেলা দল ব্রাজিল। ১৬ বার কোয়ার্টার ফাইনাল খেলেছে দলটি।

৪. বিশ্বকাপের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন দল ব্রাজিল। ১৯৫৮ ও ১৯৬২ সালে টানা দুইবার শিরোপা জিতে দলটি। এছাড়াও ইতালিও জিতে টানা দুইবার।

৫. গ্রুপ পর্বে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ খেলেছে ব্রাজিল।

৬. ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন হয়ে পরের বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্ব থেকেই বাদ পড়ার রেকর্ডও আছে ব্রাজিলের। ১৯৬৬ বিশ্বকাপে।

৭. তিনটি বিশ্বকাপ জয়ী খেলোয়ার পেলে।

৮. তিনটি ট্রুনামেন্টের ফাইনাল খেলেছেন ব্রাজিলের তিন তারকা। পেলে,কাফু ও রোনালদো।

৯. বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি বদলি হয়েছে ব্রাজিল তারকা ডেনিলসন। ১১ বার।

১০. বিশ্বকাপ ফাইনালে সবচেয়ে কম বয়সী তারকা ছিল পেলে। ১৭ বছর ২৪৯দিন।

১১. বিশ্বকাপ ফাইনালে সবচেয়ে বেশি তিনটি করে গোল করেছেন- ব্রাজিলিয়ান তারকা ভাভা ( ১৯৫৮ও ১৯৬২), পেলে (১৯৫৮ ও ১৯৭০)।

১২. একাধিক ফাইনালে গোল করেছেন ব্রাজিলিয়ান তারকা ভাভা ও পেলে।

১৩. অন্তত একটি করে হলেও সবচেয়ে বেশি ম্যাচে গোল করেছেন রোনালদো। ১১ ম্যাচে গোল করেছেন তিনি।

১৪. টানা ৬ ম্যাচে গোল করেছেন ব্রাজিলিয়ান তারকা জর্জিনহো।

১৫. বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি ৪টি ম্যাচে জোরা গোল করেছেন রোনালদো।

১৬. চারটি বিশ্বকাপেই অন্তত একটি করে গোল করেছেন পেলে।

১৭. সবচেয়ে বেশি বিশ্বকাপে (৩টি বিশ্বকাপ) অন্তত ৩টি করে গোল করেছেন রোনালদো।

১৮. কম বয়সে হ্যাটট্রিক পেলের। ফ্রান্সের বিপক্ষে ১৯৫৮ বিশ্বকাপে ১৭ বছর ৮ মাস বয়সে হ্যাটট্রিক করেন তিনি।

১৯. খেলোয়ার এবং কোচ হিসেবে সবচেয়ে বেশি ফাইনালের রেকর্ড ব্রাজিল তারকা মারিও যাজাল্লোর। ১৯৫৮,৬২,৭০ বিশ্বকাপে খেলোয়াড় এবং ১৯৭৪ ও ৯৮ এ কোচ ছিলেন।

২০. কোন হার ছাড়া টানা ১৩টি ম্যাচ জয়ের রেকর্ড ব্রাজিলের। প্রথমটি ১৯৫৮ বিশ্বকাপে ব্রাজিল ৩-০ অষ্ট্রিয়া থেকে শুরু করে পরের বিশ্বকাপে ব্রাজিল ২-০ বুলগেরিয়া পর্যন্ত।

২১. টানা সবচেয়ে বেশি ম্যাচে অন্তত একটি করে গোল করার রেকর্ড ব্রাজিলের। ১৮টি ম্যাচ।

২২. বিশ্বকাপ ফাইনালে সবচেয়ে বেশি গোল ব্রাজিলের। ১৯৫৮ বিশ্বকাপে ৫টি গোল করেছিল তারা।

২৩. দুই দল মিলিয়ে ফাইনালে সবচেয়ে বেশি গোল (৭টি) ১৯৫৮ সালেই । সেবার ব্রাজিল ৫-২ গোলে জিতেছিল সুইডেনের বিপক্ষে।

২৪. দুই দল মিলিয়ে ফাইনালে সবচেয়ে কম গোল ১৯৯৪ সালে। ব্রাজিল ০-০ ইতালি। পেনাল্টিতে ব্রাজিল জিতেছিল।

২৫. ফাইনালে সবচেয়ে বড় ব্যবধানে তিনটি জয়ের দুটি ব্রাজিলের। তবে তিনটিতেই নাম জড়িয়ে আছে ব্রাজিলের। ব্রাজিল ৫-২ সুইডেন (১৯৫৮), ব্রাজিল ৪-১ ইতালি (১৯৭০), ফ্রান্স ৩-০ ব্রাজিল (১৯৯৮)।

২৬. বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ জয়ের রেকর্ড ব্রাজিলের। ৭০টি।

২৭. এক ট্রুনামেন্টে সবচেয়ে বেশি জয়ের রেকর্ড ব্রাজিলের। ২০০২ বিশ্বকাপে সাতটি ম্যাচেই জিতেছিল তারা।

২৮. গোল দেয়া এবং হজম করার মধ্যে সর্বোচ্চ ১৪ গোলের ব্যবধান রেখে বিশ্বকাপ জিতেছিল ব্রাজিল ২০০২ সালে। একই ব্যবধান রেখে ২০১৪ সালে বিশ্বকাপ জিতেছিল জার্মানী।

 

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস

Best Electronics
Best Electronics