Alexa মায়ানমারের জাহাজ আটক, ৩০০ কোটি টাকার মাদক উদ্ধার ভারতীয় বাহিনীর

ঢাকা, শনিবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ২৩ ১৪২৬,   ১০ রবিউস সানি ১৪৪১

মায়ানমারের জাহাজ আটক, ৩০০ কোটি টাকার মাদক উদ্ধার ভারতীয় বাহিনীর

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:১৬ ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আপডেট: ২০:২২ ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

মায়ানমারের একটি জাহাজ আটক করে তার থেকে ৩০০ কোটি টাকার নিষিদ্ধ কেটামাইন ড্রাগ বাজেয়াপ্ত করল ভারতীয় উপকূলরক্ষী বাহিনী। জাহাজে থাকা ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। উপকূলরক্ষী বাহিনীর পক্ষ থেকে শনিবার একথা জানানো হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে কার নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ সংলগ্ন এলাকায়।

উপকূলরক্ষী বাহিনীর তরফে প্রকাশিত বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, গোপন সূত্রে খবর পেয়ে কার নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ সংলগ্ন এলাকায় গত বৃহস্পতিবার জল ও আকাশপথে তল্লাশি চালানো হচ্ছিল। সেসময় মায়ানমারের একটি জাহাজের গতিবিধি দেখে সন্দেহ হয় তল্লাশিকারীদের।

এরপর ওই জাহাজে গিয়ে খোঁজ চালানোর সময় ৫৭টি বন্দুকের বান্ডিল চোখে পড়ে তাদের। সঙ্গে সঙ্গে সেগুলো ভারতীয় উপকূল বাহিনীর জাহাজ রাজবীর পাঠিয়ে দেয়া হয়। সেখানে নিয়ে যাওয়ার পর খুলে দেখা যায় সন্দেহজনক কিছু বস্তু রয়েছে।

পরে নারকোটিস কন্ট্রোল বুরো ও স্থানীয় পুলিশ কর্মীরা পরীক্ষা করে জানায়, ওই সাইকোট্রফিক পদার্থগুলি হল নিষিদ্ধ মাদক কেটামাইন। মোট ১,১৬০ প্যাকেটে ১ কেজি করে ওই মাদক লুকিয়ে রাখা হয়েছিল। আর্ন্তজাতিক বাজারে ওই মাদকের বর্তমান মূল্য ৩০০ কোটি টাকা।

এই খবর পাওয়ার পরেই উপকূলরক্ষী বাহিনীকে অভিনন্দন জানিয়ে তাদের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং। এই কথা জানিয়ে একটি টুইটও করা হয় উপকূলরক্ষী বাহিনীর তরফে।

তাতে তারা উল্লেখ করেছে, আন্দামান ও নিকোবর দ্বীপপুঞ্জের কাছে একটি জাহাজ থেকে প্রচুর মাদক উদ্ধার করেছে উপকূলরক্ষী বাহিনী। এর জন্য ‘আইসিজিএস রাজবীর’ কর্মরত আধিকারিক ও কর্মীদের অভিনন্দন জানিয়েছেন তিনি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমএইচ