বগুড়ায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে

ঢাকা, সোমবার   ১৩ জুলাই ২০২০,   আষাঢ় ৩০ ১৪২৭,   ২২ জ্বিলকদ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

বগুড়ায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে

বগুড়া প্রতিনিধি  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৪৬ ৩ জুন ২০২০  

বগুড়ায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে

বগুড়ায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলেছে

বগুড়ায় আশংকাজনকভাবে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ছে। প্রতিদিন শনাক্তের সংখ্যা বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে। মঙ্গলবার একদিনে শনাক্তের সংখ্যা অর্ধশত ছাড়িয়ে গেছে। এদিন বগুড়ায় শনাক্ত হয়েছে ৫৭ জন। আর গত দশ দিনের ব্যবধানে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েছে ৩ গুনেরও বেশি।

বর্তমানে বগুড়ায় করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে প্রায় সাড়ে ৪ শ’। অপর দিকে নমুনা সংগ্রহের হার আগের তুলনায় বেড়েছে কয়েক গুন। 

নমুনা সংগ্রহ বেড়ে যাওয়ায় বগুড়া মেডিক্যাল কলেজের আরটি পিসিআর ল্যাবের ওপর চাপ বাড়ছে। এতে নমুনা জটও তৈরী হচ্ছে। প্রতিদিন পরীক্ষার অপেক্ষায় থাকা নমুনার সংখ্যাও বাড়ছে একইভাবে। 

মেডিক্যাল কলেজ সূত্র জানিয়েছে, প্রতিদিন অন্তত দেড় শ’ নমুনা পেইন্ডিং(পরীক্ষার অপেক্ষায়)থাকছে। পিসিআর ল্যাবের ওপর চাপ বেড়ে যাওয়ায় সংশ্লিস্টরা এর ব্যাকআপ মেশিন রাখার ওপর গুরুত্ব দিয়েছেন। এরইমধ্যে গত সপ্তাহে বগুড়া মেডিক্যাল কলেজের ল্যাবের নমুনা পরীক্ষার মেশিনটি যান্ত্রিক সমস্যায় পড়েছিলো। 

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছে ১ এপ্রিল বগুড়ায় প্রথম করোনা রোগী সনাক্তের এক মাস পরে রোগী ছিলো ২০ জনের মধ্যে। এর পর থেকে ক্রমান্বয়ে শনাক্তের সংখ্যা বাড়ছে। আর জেলার মধ্যে সবচেয়ে বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে বগুড়া সদর শহর এলাকায়। 

এ পর্যন্ত মোট শনাক্ত ৪শ’৪৯ জন রোগীর মধ্যে সদরে সনাক্ত রোগী ২৬২। আর শহর এলাকায় সবচেয়ে বেশি সংক্রমিত হয়েছে শহরের চেলোপাড়া। 

বগুড়া মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. রেজাউল আলম জুয়েল পিসিআর ল্যাবে চাপ থাকার কথা স্বীকার করেছেন। তিনি জানান, কলেজের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের শিক্ষকদের শূন্য পদ পূরণ করে লোকবল বাড়ানোসহ এখানে আরো একটি পিসিআর মেশিনের প্রয়োজন রয়েছে। বর্তমানে বগুড়া মেডিক্যাল কলেজের ল্যাবে ১৮৮ টি নমুনার পরীক্ষা করা হলেও বর্তমানে ৩ শতাধিক নমুনা পরীক্ষার জন্য ল্যাবে আসছে। এজন্য পরীক্ষার জন্য অপেক্ষামান নমুনার সংখ্যা বাড়ছে। 

বগুড়ার ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. মোস্তাফিজুর রহমান তুহিন জানিয়েছেন, মঙ্গলবার পর্যন্ত পরীক্ষার জন্য অপেক্ষামান নমুনা ছিলো ১৬শ’৬২টি। এরমধ্যে ঢাকায় পাঠান হয়েছে ৫ শতাধিক। তিনি আরো জানান, নমুনা জট কমানোসহ এসব নমুনার গুনগত মান ঠিক রেখে দ্রুত পরীক্ষা সম্পন্ন করতে ঢাকায় পাঠান হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমএইচ