ফের বাড়ছে সোমেশ্বরীর পানি 
SELECT bn_content.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content.ContentID WHERE bn_content.Deletable=1 AND bn_content.ShowContent=1 AND bn_content.ContentID=118319 LIMIT 1

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৬ আগস্ট ২০২০,   শ্রাবণ ২২ ১৪২৭,   ১৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

ফের বাড়ছে সোমেশ্বরীর পানি 

রিফাত আহমেদ রাসেল, দুর্গাপুর (নেত্রকোনা) ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৪৫ ১০ জুলাই ২০১৯  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে দ্বিতীয়বারের মতো বাড়তে শুরু করেছে নেত্রকোনার দুর্গাপুরের সকল নদীর পানি। 

বুধবার সকাল থেকে বাড়তে শুরু করে সোমেশ্বরীর পানি। নদীর দুই তীর ভরে ফুলে ফেঁপে উঠে সোমেশ্বরী। স্থানীয়রা বলছে ভারতের মেঘালয়ের টানা বৃষ্টি কারণে বৃদ্ধি পেতে শুরু করেছে নদীর পানি। উজানে আবহাওয়া এখনো খারাপ থাকায় পানি বৃদ্ধি অবহৃত থাকতে পারে। ফলে নিম্ন অঞ্চল প্রবাহিত হওয়ার সম্ভবনা আছে। 

স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্রে জানা যায়, টানা কয়েক দিন বৃষ্টিতে দ্বিতীয় দফায় বাড়তে শুরু করেছে সোমেশ্বরীর পানি। উজানে ভারী বৃষ্টি কারণে সকাল থেকেই নতুন করে সোমেশ্বরীতে পানি বৃদ্ধি অবহৃত আছে। আর দুপুরের পর থেকে দুর্গাপুর পয়েন্টে বিপদসীমা ১২.৪৩ সেন্টিমিটার পাড় হয়ে ০.৬৮ সেন্টিমিটার ও বিজয়পুর পয়েন্টে ১৫.৮৯ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে উজানে বৃষ্টি বন্ধ হয়ে নদীর পানিও কমতে পারে।

নদীতে পানি বাড়ায় দুর্গাপুর-শিবগঞ্জ, বিরিশিরি-শিবগঞ্জ, ফারাংপাড়া-কামারখালী, চৈতাটি- গাঁওকান্দিয়া ঘাটে নদীতে তিব্র স্রোতে থাকায় নৌকা নিয়ে মানুষ পাড়ে বেগ পেতে হচ্ছে। অনেকেই জীবনের ঝুকি নিয়ে ভর নদীতে ইঞ্জিল চালিত নৌকা দিয়ে পারাপার হতে দেখা গেচ্ছে। 
তাছাড়া পৌরসভার শিবগঞ্জ-ডাকুমারা, কুল্লাউড়া ইউনিয়নের কামারখালী এলাকায় নদীতে বেরিবাঁধা না থাকায় কয়েক কিলোমিটার এলাকা জুড়ে নদী ভাঙ্গনের আতংকে রয়েছে স্থানীয়রা। 

নদীর তীরবর্তী বাসিন্দারা জানায়, নদীতে যে ভাবে পানি বাড়ছে এর ফলে বন্যার আশংকা রয়েছে। আমাদের এখনো বাড়ি ঘরে পানি না উঠলেও পানি বাড়ছে তাতে উঠতে বেশি সময় লাগবে না। 

এই দিকে দুর্গাপুর-শ্যামগঞ্জ মহাসড়কের ঝুকিপূর্ণ অংশ ইন্দ্রপুরের সরু কালভার্টের নিচ দিয়ে বেড়েছে পানি প্রবাহের বেগ। ফলে নতুন করে আবারো ভাঙন আতংকে রয়েছে সড়কটি। তবে ভাঙন রোধে বালুবস্তা দিওয়া হচ্ছে বলে জানিছে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান। 

ইউএনও ফারজানা খানম বলেন, ঢলের পানি মোকাবেলায় উপজেলার সকল দফতরকে সম্পূর্ণ প্রস্তুত থাকতে বলা হয়েছে। আর ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাগুলোও চিন্তিত করে সেই অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরআর