ফিরে দেখা : কবি আলেকজান্ডার পুশকিন
SELECT bn_content_arch.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content_arch.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content_arch.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content_arch INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content_arch.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content_arch.ContentID WHERE bn_content_arch.Deletable=1 AND bn_content_arch.ShowContent=1 AND bn_content_arch.ContentID=80058 LIMIT 1

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০,   আশ্বিন ৭ ১৪২৭,   ০৪ সফর ১৪৪২

ফিরে দেখা : কবি আলেকজান্ডার পুশকিন

আরিফুল ইসলাম আরিফ

 প্রকাশিত: ১৬:২৪ ২৯ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৬:২৪ ২৯ জানুয়ারি ২০১৯

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

১৮৩৭ সালের আজকের এই দিনে (২৯ জানুয়ারি) আধুনিক রুশ সাহিত্যের স্থপতি কবি আলেকজান্ডার পুশকিন মৃত্যু বরণ করেন । কবি আলেকজান্ডার পুশকিনের পুরো নাম আলেক্সজান্ডার সের্গেয়েভিচ পুশকিন। যিনি রাশিয়ার সেক্সপিয়ার নামে খ্যাত।

কবি আলেকজান্ডার পুশকিন ১৭৯৯ সালের ৬ জুন জারশাসিত রাশিয়ার মস্কোয় জন্মগ্রহণ করেন। মূলতঃ কবি হলেও তিনি নাটক, গল্প, মহাকাব্য, উপন্যাসও লিখেছেন। তাঁর বিখ্যাত উপন্যাসের নাম ‘ইয়েভেজেনি ওনেজিন'। পুশকিনের ‘ম্যাসেজ অব ইউরোপ’,‘রুসলাম অ্যান্ড লুদমান’ উল্লেখযোগ্য কাব্যগ্রন্থ। মাত্র ৩৮ বছর বয়সে পুশকিনের মৃত্যুকে রুশ সাহিত্রের বিপর্যয় হিসেবে দেখা হয়।

তাঁর লেখা রচনার প্রায় সবই ইংরেজি ভাষায় অনূদিত হয়েছে। তাঁর বিখ্যাত উপন্যাসের নাম ‘ইয়েভেজেনি ওনেজিন’। উপন্যাসটি রুশ সাহিত্যের একটি মাইল স্টোন হিসেবে চিহ্নিত। এই উপন্যাসে তিনি সর্বপ্রথম বাস্তব কাহিনী-ভিত্তিক উপন্যাস রচনার দিক নির্দেশনা প্রদর্শন করেন। এ কারণে পুশকিনকে আধুনিক রুশ সাহিত্যের স্থপতি তথা প্রতিষ্ঠাতা বলা হয়।

১৮২৯ থেকে ১৮৩৬ সালের মধ্যে রুশ সাহিত্যে তাঁর অনেকগুলো রচনার কারণে নবদিগন্তের উন্মেষ ঘটে। রাশিয়ার তখন ছিলো রাজতন্ত্র। পুশকিন ছিলেন রাজতন্ত্র বিরোধী। রাজতন্ত্রের বিরুদ্ধে লেখালেখির কারণে পুশকিনকে সেন্ট পিটার্সবুর্গ থেকে বন্দী করে নির্বাসনে পাঠানো হয় দক্ষিণ রাশিয়ার একটি দুর্গম অঞ্চলে তবু তার লেখনী থেমে থাকেনি। তিনি সাংবাদিকতাও করেছেন এবং তার সাংবাদিকতার বিষয় ছিল সাহিত্য। রুশ ভাষায় যে সংবাদপত্র তিনি সম্পাদনা করতেন তার বাংলা নাম হতে পারে সমসাময়িক সাহিত্য।

পুশকিনের অসংখ্য কবিতা তরুণদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। রাশিয়ান রোমান্টিজম এর প্রদর্শক হিসেবে স্বীকৃত পুশকিন এর “আমি তোমাকে ভালবাসতাম, সম্ভবত এখনও ভালবাসি” I loved you, and I probably still do কবিতাটি একটি শক্তিশালী ভালবাসার কবিতা হিসেবে সমাদৃত।

অকালে মারা গেলেও পুশকিন আজো আধুনিক রুশসাহিত্যের জনক বলে স্বীকৃত। ভাষার উপর আশ্চর্য দক্ষতা, প্রাঞ্জলতা ও গভীরতা ছিলো তাঁর সাহিত্যের মূল বৈশিষ্ট্য। পুশকিন রাশিয়ান রোমান্টিজম এর প্রদর্শক হিসাবে স্বীকৃত এবং প্রেম বিষয়ক কবি হিসাবে জগদ্বিখ্যাত। সমসাময়িককালে তিনি শুধু রাশিয়ান হিসাবেই নয়, বরং সমগ্র পৃথিবীতে অত্যন্ত শক্তিমান কবি হিসাবে স্বীকৃত।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমএইচ