Alexa ফিরছে কাবিলার রোকেয়া, জানালেন নির্মাতা

ঢাকা, বুধবার   ২০ নভেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ৬ ১৪২৬,   ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

Akash

‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ থেকে ফিরে

ফিরছে কাবিলার রোকেয়া, জানালেন নির্মাতা

নাজমুল আহসান ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:৩৩ ৪ নভেম্বর ২০১৯   আপডেট: ১৫:৩৫ ৪ নভেম্বর ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

চলতি বছরের আলোচিত ধারাবাহিক নাটকগুলোর মধ্যে অন্যতম ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’। নাটকটি যেমন দর্শকদের মনে জায়গা করে নিয়েছে, তেমনি নির্মাতা কাজল আরিফিন অমিও নিজের সবটুকু মেধা-শ্রম ঢেলে দিয়েছেন। 

বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল নাইনের পর্দায় প্রচারিত হয় নাটকটি। চ্যানেলটির সঙ্গে ১৫২ পর্বের চুক্তি থাকলেও যখন ৫২তম পর্ব প্রচারিত হয় ঠিক সেই সময় হঠাৎ করেই প্রচার বন্ধ হয়ে যায়।

কিন্তু এরপর দর্শকরা নাটকটি যাতে আবারো প্রচারে আসে সেজন্য মানববন্ধনও করেছেন। দর্শক চাহিদার কথা চিন্তা করেই কাজল আরেফিন অমি আবারো নির্মাণ করছেন নাটকটির বাকী পর্বগুলো। তবে এবার আর কোনো টেলিভিশন চ্যানেলে নয়। নির্মাতা জানালেন ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ প্রচারিত হবে মোশন রক এর তথ্যাবধানে ধ্রুব টিভির ইউটিউব চ্যানেলে।

রোববার (৩ নভেম্বর) রাতে নির্মাতা কাজল আরেফিন অমির সঙ্গে কথা হয় ডেইলি বাংলাদেশ-এর প্রতিবেদক নাজমুল আহসানের। তিনি জানালেন রাজধানীর উত্তরার ১২ নম্বর সেক্টরের একটি বাড়িতে ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’র সিজন-২ এর শেষ লটের দৃশ্যধারণের কাজ চলছে। নির্মাতার দেয়া ঠিকানা মতো নয়টার কিছুক্ষণ পর পৌচ্ছালাম শুটিং বাড়টির সামনে। আট-দশটা বাড়ির মতোই সাদা-মাটা বাড়ি যে কেউ দেখলে বুঝতে পারবেন এখানে কিছু একটা হচ্ছে। বাড়ির দৌতালা বারান্দায় দুটি শুটিং স্ট্যান্ড লাইট লাগানো, বাড়ির সামনে শুটিং ইউনিটের কয়েকটি গাড়ি পার্কিং করে রাখা। 

গুটি গুটি পায়ে সিড়ি বেয়ে উঠলাম দৌতালায়। তখন ঘড়িতে রাত নয়টার বেশি। নাট্য সংগঠনের নতুন নীতিমালা অনুযায়ী দশটার মাঝে শুটিং শেষ করতে হবে। তাই নির্মাতা দ্রুত শর্ট নিতে বেশ ব্যস্ত। ব্যস্ততার ফাঁকে বসতে বললেন। প্রোডাকশনের লোকদের নাস্তা দেয়ার কথা বলে আবারো শর্টে ব্যস্ত হয়ে পড়লেন। একটি শর্ট শেষ হলো, ক্যামেরার সামনে ছিলেন মারজুক রাসেল আর তামিম মৃধা। এ দুজনেই ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ নাটকের সিজন-২তে যুক্ত হয়েছেন, জানালেন নির্মাতা। 

এরপর আবারো নতুন শর্ট কিভাবে নিবেন সেটাই বুঝিয়ে দেয়া শুরু করলেন তিনি। শর্ট শুরু হলো- তামিম মৃধা ডায়লগ বলা শুরু করলেন মারজুক রাসেলের উদ্দেশ্যে- ভাইয়া কিছু বলবেন? 

মারজুক রাসেল- তুমি না নাটক ফাটক করো? 
তামিম- ভাইয়া নাটক ফাটক করি না, নাটক করি। 
মারজুক- আমরা খাওয়া-দাওয়া, বাসা-টাসা বলি না? তেমনি ধরো নাটক ফাটক। কথার পৃষ্টে চলে আসে। 
তামিম- তাহলে ঠিক আছে ভাইয়া। 
মারজুক- তোমাদের নাটকের গল্প লাগে না? 
তামিম- লাগে তো। 
মারজুক- তাহলে আমার কাছে একটা গল্প আছে নিতো পারো। 
তামিম মজার ছলেই বললেন, এটা কি জীবন থেকে নেয়া? 
মারজুক- আরে মিয়া এটা জীবন থেকে নেয়া না জীবন থেকে দেয়া। গল্পটা হচ্ছে শারীরিক ও মানুষিক মনো-দৈহিক প্রেমের ক্রাইসিসের গল্প। নাম জেল থেকে শুনছি। এরপর গল্প শোনাতে থাকলেন মারজুক রাসেল। 

শর্ট শেষে করেই নির্মাতার কাছে জানতে চাওয়া হলো- নাটকটির সিজন-২ কবে থেকে প্রচারে আসবে? জবাবে নির্মাতা কাজল আরেফিন অমি বলেন এই সিজনের কাজ শেষের দিকে। সম্পাদনার কাজ শেষে চলতি মাসের মাঝামাঝি থেকেই প্রচার শুরু হবে বলে আশা করছি। 

‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ নাটকে অন্যরকম মাত্রা যোগ করেছে কাবিলা চরিত্রটি। অভিনেতা পলাশ এ চরিত্রে রূপদান করেছেন। নোয়াখালির আঞ্চলিক ভাষায় তার অনবদ্য অভিনয় দর্শক মহলে বেশ সারা ফেলেছে। 

নাটকে দেখা যেত কাবিলা প্রায়ই তার প্রেমিকা রোকেয়ার সঙ্গে ফোন আলাপ করতেন। কিন্তু চরিত্রটি বরাবরই পর্দার আড়ালেই রয়ে গেছে। এই চরিত্রটি নিয়ে দর্শকমহলে আগ্রহ রয়েছে কে এই রোকেয়া? 

রোকেয়া কবে নাগাদ পর্দায় রূপ দেখাবেন জানতে চাইলে নাটকটির নির্মাতা বলেন, সিজন-২ ও রোকেয়াকে নিয়ে আরো অনেক মজার মজার ঘটনা রয়েছে। রোকেয়া চরিত্রটি আমরা রহস্যে ঘিরে রেখেছি। তবে এ সিজনে না হলেও সবশেষ সিজনে রোকেয়াকে পর্দায় দেখানো হবে। তবে কবে নাগাদ, কততম পর্বে দেখানো হবে সে বিষয়টি এখনো নিশ্চিত নয়। 

এ সময় আলোচনার পাশাপাশি কাজের সমালোচনা সম্পর্কে এ নির্মাতা বলেন, যে কাজটি আলোচিত হবে তার সমালোচনাও হবে সেটা স্বাভাবিক। তবে নিজ কাজের সমালোচনা শুনতে আমার ভালো লাগে। কারণ সমালোচনা শুনলে তখন নিজেকে জীবিত মনে হয়। সমালোচনায় যুক্তিযুক্ত বিষয়কে সংশোধন করার চেষ্টা করি। যখন আমাকে বা আমার কাজ নিয়ে কেউ সমালোচনা করে তখন নিজেকে ভাগ্যবান বলে মনে হয়।

কথা বলতে বলেত ঘড়ির কাটা দশটা অতিক্রম করেছে। আজকের মতো এখানেই শুটিং শেষ করলেন নির্মাতা। এরপর তামিম মৃধা, শামীম হাসান, চাষী, মারজুক রাসেল ও নির্মাতার কাছে থেকে আমরাও বিদায় নিলাম।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনএ/টিএএস