Alexa প্রতিদিন একটি এলাচেই মিলবে আরোগ্য

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৬ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ২ ১৪২৬,   ১৩ জ্বিলকদ ১৪৪০

প্রতিদিন একটি এলাচেই মিলবে আরোগ্য

ফাতিমাতুজ্জোহরা ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৪:৪৩ ১৬ মার্চ ২০১৯   আপডেট: ১৪:৪৩ ১৬ মার্চ ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

সকলের রান্নাঘরেই রয়েছে এমন একটি উপাদান হলো এলাচ। মসলা হিসেবেই প্রাচীনকাল থেকে একটি ব্যবহৃত হয়ে আসছে। অনেকেই এলাচ খুব বেশি একটা পছন্দ করেননা। তরকারিতে আস্ত এলাচ ব্যবহার করতে যখন খাওয়ার সময় মুখে পড়ে তাতে নিশ্চয় বেশ বিরক্তকর। রান্নার স্বাদ ও গন্ধ বাড়ানোর জন্য সাধারণত এলাচ ব্যবহার করা হয়। কিন্তু এলাচ রান্না ছাড়াও অনেক উপকারে আসে। শারীরিক বিভিন্ন সমস্যার সমাধান রয়েচে এলাচে। প্রতিদিন একটি করে এলাচ খাওয়া শুরু করলে অদ্ভুত ফলাফল পাবেন। উপকারিতাগুলো সম্পর্কে তবে জেনে নিন-

যারা এসিডের সমস্যায় ভুগেন, বুক জ্বালা পোড়া করে ও বমি বমি ভাব হয়, পেট ফেঁপে থাকে বা হজমের কোনো সমস্যা হয় তবে সেসব সমস্যা এক নিমিষে দূর করতে পারে এলাচ। কারণ এলাচ হচ্ছে আদার মতোই উপকারি একটি মসলা। আদার মতো এলাচও পেটের নানা রকম সমস্যা ও হজমের সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে। তাই প্রতিদিন একটি করে এলাচ খেলে যেকোনো রকমের পেটের সমস্যা বা হজমের সমস্যা দূর হয়ে যাবে। এছাড়াও এলাচে রয়েছে ডিউরেটিক উপাদান। যা দেহের ক্ষতিকর টক্সিন প্রতিরোধে ভীষণভাবে সাহায্য করে থাকে। তাই ক্ষতিকর টক্সিন দূর করতে এলাচের কোনো জুড়ি নেই। 

অনেকের রক্তনালীতে রক্ত জমাট বেঁধে থাকে। এলাচ রক্ত পাতলা করতে সাহায্য করে। তাই রক্তনালীতে রক্ত জমাট বাঁধা থেকে মুক্তি দিতে পারে এলাচ। প্রতিদিন একটি করে এলাচ খেলে রক্তের ঘনত্ব সঠিক থাকবে। সেই সঙ্গে এলাচের ডিউরেটিক উপাদান উচ্চ রক্তচাপের সমস্যাও কমিয়ে আনতে পারে। দেহের বাড়তি ফ্লুইড দূর করে এলাচ উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা নিয়ন্ত্রণে আনতে ভীষণভাবে সাহায্য করে থাকে। সুতরাং যাদের উচ্চ রক্তচাপ রয়েছে তারা এলাচ খেতে পারেন। 

অনেকেরই মুখে দূর্গন্ধ থাকে। মুখে একটি এলাচ নিয়ে এ সমস্যা এক নিমিষেই দূর করতে পারেন। অর্থাৎ একটি এলাচ মুখে নিয়ে চুষতে হবে। এলাচ মুখের দূর্গন্ধ সৃষ্টিকারী ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে মুখের দূর্গন্ধ দূর করে থাকে। আপনি যদি নিয়মিত এলাচ খাওয়ার অভ্যাস করেন তবে মুখের দুর্গন্ধের পাশাপাশি মাড়ির ইনফেকশন বা মুখের ফোঁড়া এ ধরণের যেকোনো রকম সমস্যা দূর হবে। এছাড়াও দাঁত ও মাড়ির নানা রকম সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে পারেন। তাই নিয়মিত এলাচ খেলে দাঁত ভালো থাকবে ও মাড়ির কোনো সমস্যা হবে না। একটি গবেষণা থেকে জানা যায়, নিয়মিত এলাচ খাওয়ার অভ্যাস ক্যান্সার প্রতিরোধেও সাহায্য করে থাকে। এলাচ দেহে ক্যান্সারের কোষ গঠনে বাঁধা প্রদান করে থাকে। সুতরাং যেকোনো ক্যান্সারের হাত থেকে নিজেকে রক্ষা করতে এলাচ অবশ্যই খেতে পারেন। 

এছাড়াও এলাচের অ্যান্টি অক্সিডেন্ট উপাদান ত্বকে বয়সের ছাঁপ পড়তে দেয় না। সেইসঙ্গে রিঙ্কেল ফ্রি রেডিকেলস ইত্যাদি পড়তে বাঁধা দেয় এলাচ। এটি ত্বকের ক্ষতি পূরণেও বেশ সহায়ক ভূমিকা পালন করে। সুতরাং প্রতিদিন একটি এলাচ খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারি। কিন্তু এলাচ খেলে যদি কোনো সমস্যা হয় তবে অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস