পীরগঞ্জে দুইজনের নমুনা সংগ্রহ, বাড়ি লকডাউন

ঢাকা, শনিবার   ০৮ মে ২০২১,   বৈশাখ ২৫ ১৪২৮,   ২৫ রমজান ১৪৪২

পীরগঞ্জে দুইজনের নমুনা সংগ্রহ, বাড়ি লকডাউন

পীরগঞ্জ (রংপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:২২ ৮ এপ্রিল ২০২০   আপডেট: ১২:৪৪ ৮ এপ্রিল ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জের হাজীপুর ইউপির সাটিয়া গ্রামের একটি বাড়ির দুইজনের নমুনা সংগ্রহ করে  বাড়িটি লকডাউন করা হয়েছে। ওই দুইজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন সন্দেহে এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই বাড়ির এক তরুণের অসুস্থতার কথা জানতে পারলে মঙ্গলবার এ ঘোষণা দেন উপজেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) তরিকুল ইসলাম।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, জ্বর, সর্দি ও কাশিতে আক্রান্ত ওই তরুণ গত রোববার ছুটিতে ঢাকা থেকে সাটিয়া গ্রামের বাড়িতে আসেন। সে ঢাকার একটি পোশাক কারখানায় কর্মরত ছিল। জ্বর, সর্দি ও কাশিতে আক্রান্ত জেনেও ওই তরুণ বাড়িতে আইসোলেশনে না থেকে এলাকার বিভিন্ন স্থানে অবাধে চলাফেরা করছিল। গোপন সংবাদের মাধ্যমে ওই তরুণের অসুস্থতার কথা জানতে পেরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) তরিকুল ইসলাম এবং উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আব্দুল জব্বারের নেতৃত্বে একদল চিকিৎসক সন্দেহভাজন ওই তরুণের বাড়িতে গিয়ে তার ও তার বিমাতার  রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে ওই বাড়ি লকডাউন করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আব্দুল জব্বার জানান, তাদের নমুনা পরীক্ষার জন্য বুধবার রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হবে। রিপোর্ট পাওয়ার পর জানা যাবে তারা করোনা আক্রান্ত কী না।

ইউএনও রেজাউল করিম বলেন, আগামী ১৪ দিন ওই বাড়িতে কোনো মানুষ প্রবেশ করবে না এবং ওই বাড়ি থেকে কেউ বের হবে না। তবে ওই বাড়ির লোকজনের খাওয়াসহ সার্বিক বিষয়ে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও সংশ্লিষ্ট সদস্যকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এছাড়া এলাকাবাসীকে ওই বাড়ির লোকজনের প্রতি মানবিক আচরণ করতে বলা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ/এসএএম