ঢাকা, শনিবার   ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ৪ ১৪২৫,   ১০ জমাদিউস সানি ১৪৪০

পাবনায় জোড়া খুন: ৫১ জনের নামে মামলা

পাবনা প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১১:০৩ ৬ ডিসেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১১:০৩ ৬ ডিসেম্বর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

পাবনা সদর উপজেলার ভাড়ারা ইউপি আওয়ামী লীগের সংঘর্ষের দুইজন নিহতের ঘটনায় মামলা হয়েছে। বুধবার রাতে পাবনা সদর থানায় ৫১ জনের নামে এ মামলা করেন সংঘর্ষে নিহত মহসীন খান লস্করের ছেলে সুলতান মাহমুদ খান।

মামলায় প্রধান আসামি করা হয় সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ খানকে। তিনি ভাড়ারা ইউপি চেয়ারম্যান। বাকি আসামিরা হলেন আব্দুল কাদের মাস্টার,রফিক আলী খান,আক্কারে কানা,বকুল,আকুল, ডন,নাসির,হোসেন আলী,সোলেমান,রবি,মাহাতাব,নাদের বিশ্বাস।

পাবনা সদর থানার ওসি ওবাইদুল হক বলেন, হামলাকারীরা সুলতানের বাবা ও প্রতিবেশীকে পিটিয়ে এবং গুলি করে হত্যা করে। এরপর তাদের বাড়িতে ব্যাপক লুটপাট চালায়। এ সময় হামলাকারীরা নগদ টাকা ও স্বর্ণালঙ্কারসহ প্রায় ৫ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। 

সোমবার সন্ধ্যায় পাবনা সদর উপজেলার ভাড়ারায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান,সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ খান ও আওয়ামী লীগে যোগ দেয়া সুলতান মাহমুদ খানের গ্রুপের সংঘর্ষ হয়। এতে নিহত হন সুলতানের বাবা মহসীন খান লস্কর,আব্দুল মালেক শেখ।আহত হন দুই নারীসহ ১০ জন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম