Alexa পর্বতগুলো মাউন্ট এভারেস্টের চেয়েও তিনগুন বিশাল, কোথায় আছে জানেন?

ঢাকা, শনিবার   ১৬ নভেম্বর ২০১৯,   অগ্রাহায়ণ ১ ১৪২৬,   ১৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

Akash

পর্বতগুলো মাউন্ট এভারেস্টের চেয়েও তিনগুন বিশাল, কোথায় আছে জানেন?

জান্নাতুল মাওয়া সুইটি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:০৮ ২৩ অক্টোবর ২০১৯   আপডেট: ১২:২৪ ২৩ অক্টোবর ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

উচ্চতম পর্বত হিসেবে সর্বপ্রথম মাউন্ট এভারেস্টের কথায় মনে আসে সবার! যার উচ্চতা ৮ হাজার ৮৪৮ মিটার। তবে কখনো ভেবে দেখেছেন কি? সৌর জগতেও রয়েছে বিশাল সব পাহাড়। ভাবতে অবাক লাগলেও সত্যিই, আমাদের সোলার সিস্টেমের সবচেয়ে উঁচু পর্বতের উচ্চতা, মাউন্ট এভারেস্টের তুলনায় প্রায় তিনগুন বেশি। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক সেসব  দানব আকৃতির পাহাড়গুলো সম্পর্কে-

অ্যাসস্ট্রিয়াস মন্স মার্স 

অ্যাসস্ট্রিয়াস মন্স মার্স অ্যাসস্ট্রিয়াস মন্সের উচ্চতা ৯ দশমিক ৩ মাইল। অর্থাৎ ১৫ কিলোমিটার, যা মঙ্গল গ্রহের দ্বিতীয় উচ্চতম পর্বত। এটি সৃষ্টি হয়েছে আগ্নেয়গিরি থেকে বেড়িয়ে আসা লাভা থেকে। অ্যাসস্ট্রিয়াস মন্স আজকের নয়, মনে করা হয় এই পর্বতের জন্ম আজ থেকে প্রায় ২ থেকে ৮ হাজার বছর আগে। এর আবিষ্কার ১৯৭১ সালে মেরিনার সেভেন পেসক্রাফট দ্বারা করা হয়। এর আগের নাম ছিলআ নর্থস্পট। এই নামের পিছনে যে কারণটি ছিলো, তা হলো মঙ্গল গ্রহে যে ধূলিঝড় হয় তা শান্ত হওয়ার পর, মাত্র চারটি পর্বতশৃঙ্গই দৃশ্যমান হয় আর এই পাহাড়ের অবস্থান ছিলো দক্ষিণ দিকে। পরবর্তীতে ১৯৭৩ সালে এর নাম পরিবর্তন করে অ্যাসস্ট্রিয়াস মন্স রাখা হয়। প্রায় ৪৮০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে এটি বিস্তৃত।

বুশল মনটেস- জুপিটার মুন লো

বুশল মনটেস- জুপিটার মুন লোএটি সৌরজগতের বৃহস্পতি গ্রহের উপগ্রহ লো তে অবস্থিত। এখানে প্রায় ৪০০ টি আগ্নেয়গিরি রয়েছে তার মধ্যে সবচেয়ে উচ্চতম হলো বুশল মনটেস। এটি প্রায় ৫৪০ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে বিস্তৃত এবং এর উচ্চতা প্রায় ১৮ দশমিক ২ কিলোমিটার। গ্রীক মিথলজির এক গুহার নাম অনুসারে এই উপগ্রহের নামকরণ করা হয় লো। যেখানেই জিউসের স্ত্রী তার পুত্র এপোফাসের জন্ম দেন। পরবর্তীকালে ১৯৮৫ সালে ইন্টারন্যাশনাল অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল ইউনিয়ন দ্বারা এই নামটি এপপ্রুভ করা হয়।

ইকুয়েটোরিয়াল রিচ, স্যাটার্ন মুন আইপেটাস 

ইকুয়েটোরিয়াল রিচ, স্যাটার্ন মুন আইপেটাস শনি গ্রহের উপগ্রহ আইপেটাসে অবস্থিত ইকুয়েটোরিয়াল রিচ। যার উচ্চতা প্রায় ১২ দশমিক ৪ মাইল অর্থাৎ ২০ কিলোমিটারের বেশি। ২০০৪ সালের ৩০শে ডিসেম্বর ক্যাসিনি পেসক্রাফট এটির আবিষ্কার করে। এই পর্বতের সৃষ্টি নিয়ে অনেক বিতর্ক রয়েছে। যেমন- অনেকে মনে করেন, আইপেটাসের সৃষ্টির সময় এর গঠন হয়েছিলো আবার অনেকের ধারনা অনেক গভীরে থাকা শিলা বা বরফের চাঁই উপরে উঠে আসার কারণে এই পর্বতের সৃষ্টি হয়েছে। আবার অনেকে বলছে, এই উপগ্রহের ভয়ানক কম্পনের কারণে এর সৃষ্টি হয়েছে। ইউকের ম্যাথমেটিসিয়ান অ্যাস্ট্রোনমার অ্যান্ড ইনভেন্টর জন হাসকেল এর নামকরণ করেন।

অলিম্পাস মন্স, মার্স

অলিম্পাস মন্স, মার্সসোলার সিস্টেমের দ্বিতীয় এবং মঙ্গল গ্রহের সর্বোচ্চ উচ্চতম পর্বত হলো অলিম্পাস মন্স। যার উচ্চতা পৃথিবীতে অবস্থিত মাউন্ট এভারেস্টের উচ্চতা প্রায় দ্বিগুনের থেকেও বেশি। সমতল থেকে এর উচ্চতা প্রায় ১৩ দশমিক ৭ মাইল অর্থাৎ ২২ কিলোমিটার। ১ লাখ ১৪ হাজার স্কয়ার মাইলস জুড়ে বিস্তৃত এই অলিম্পাস মন্স। ২০০৪ সালে এটির আবিষ্কার করা হয়। কয়েক হাজার বছরের সঞ্চিত তরল এবং আগ্নেয়গিরির লাভা দিয়ে তৈরি এই পর্বতটি।

রিসিলভিয়া মন্স, ফোর ভেস্টা অ্যান্ড্রয়েড

রিসিলভিয়া মন্স, ফোর ভেস্টা অ্যান্ড্রয়েড
 অ্যান্ড্রয়েড বেল্টের ৫২৫ কিলোমিটার পরিধির, বিশাল আকার অ্যান্ড্রয়েড হলো ফোর ভেস্টা। যেটি সৌরজগতের বৃহত্তম অ্যান্ড্রয়েড এবং এটিও সূর্যের চারদিকে প্রদক্ষিণ করছে। ১৯৯৭ সালে হাভেল পেস টেলিস্কোপের পাঠানো কিছু ছবি সাহায্যে, পর্বতটি আবিষ্কার করা হয়। রোমান মাইথোলজির এক দেবীর নামে এর নামকরণ করা হয়। আমাদের সোলার সিস্টেমের সর্বোচ্চ পর্বত রিসিলভিয়া মন্স, এই অ্যান্ড্রয়েডেই অবস্থিত। এর উচ্চতা ১৪ দশমিক ২ মাইল অর্থাৎ ২৩ কিলোমিটার। অ্যান্ড্রয়েডের সঙ্গে ধাক্কার ফলেই এই পর্বতের সৃষ্টি হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস