নর্থ জোনের বিপক্ষে শক্ত অবস্থানে ইস্ট জোন

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৯ এপ্রিল ২০২০,   চৈত্র ২৭ ১৪২৬,   ১৬ শা'বান ১৪৪১

Akash

নর্থ জোনের বিপক্ষে শক্ত অবস্থানে ইস্ট জোন

ক্রীড়া প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:১৪ ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) শেষ রাউন্ডে নর্থ জোনের বিপক্ষে ব্যাটসম্যান ইয়াসির আলির ১৬৫ রানের সুবাদে প্রথম ইনিংসে লিড পেয়েছে ইস্ট জোন।  নর্থ জোনের ২৭২ রানের জবাবে ৩৩১ রানে অলআউট হয় ইস্ট জোন। ফলে প্রথম ইনিংস থেকে ৫৯ রানের লিড পায় ইস্ট জোন। পিছিয়ে থেকে নিজেদের ইনিংস শুরু করে বিপাকে পড়েছে নর্থ জোন। দ্বিতীয় ইনিংসে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৪৫ রান করেছে নর্থ জোন। ফলে ৫ উইকেট হাতে নিয়ে মাত্র ৮৬ রানে এগিয়ে নর্থ জোন।

কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় দিন শেষে ৭ উইকেটে ২৬১ রান করেছিলো ইস্ট জোন। লিড থেকে ১২ রান দূরে ছিলো তারা। হাতে ছিলো ৩ উইকেট। ১৩৪ রানে অপরাজিত থেকে ইস্ট জোনের লিডের আশা বাঁচিয়ে রেখেছিলেন ইয়াসির। তার সাথে ৬ রানে অপরাজিত ছিলেন নাইম হাসান।

নাইমকে নিয়ে অষ্টম উইকেটে ৭৪ রানের জুটি গড়ে দলকে লিড এনে দেন ইয়াসির। দলীয় ৩২১ রানে উইকেট পতনের তালিকায় নাম তুলেন তিনি। ৩১৮ বল মোকাবেলা করে ১৭টি চার ও ২টি ছক্কায় ১৬৫ রান করেন ইয়াসির। তাকে লেগ বিফোর আউট করেন স্পিনার সানজামুল ইসলাম। কিছুক্ষণ বাদে ৩১ রানে থামেন নাইম।

এরপর ৩৩১ রানে গুটিয়ে যায় ইস্ট জোন। নর্থ জোনের সানজামুল ১১৫ রানে ৭ উইকেট নেন। পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে ৩৪ রানে ২ উইকেট হারায় নর্থ জোন। ওপেনার রনি তালুকদার ৫ ও তিন নম্বরে নেমে ১৪ রান করেন তানবীর হায়দার।

পরিস্থিতির সামাল দিয়েছিলেন জুনায়েদ সিদ্দিকী ও অধিনায়ক নাইম ইসলাম। তৃতীয় উইকেটে ৪৭ রানের জুটি গড়েন তারা। দু’জনই ছোট ছোট ইনিংস খেলে ফিরেন। জুনায়েদ ৩৬ ও নাইম ৩৫ রান করেন। আরিফুল হকও বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হয়েছেন। ছয় নম্বরে নেমে ৯ রানে থামেন তিনি।

প্রথম ইনিংসে ১৪০ রান করা মুশফিকুর দিন শেষে অপরাজিত আছেন। তার সংগ্রহ ২৩ রান। ২২ রানে অপরাজিত আছেন উইকেটরক্ষক মাহিদুল ইসলাম অঙ্কন। ইস্ট জোনের পক্ষে ৫৮ রানে ২ উইকেট নিয়েছেন স্পিনার নাইম হাসান।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস