নরসিংদীতে ধরা পড়লেন কারাগার থেকে পালানো সেই রুবেল

ঢাকা, বুধবার   ১৪ এপ্রিল ২০২১,   বৈশাখ ১ ১৪২৮,   ০১ রমজান ১৪৪২

নরসিংদীতে ধরা পড়লেন কারাগার থেকে পালানো সেই রুবেল

চট্টগ্রাম মহানগর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৪৫ ৯ মার্চ ২০২১   আপডেট: ১৪:০৮ ৯ মার্চ ২০২১

গ্রেফতার রুবেল

গ্রেফতার রুবেল

চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে পালিয়ে যাওয়া আসামি ফরহাদ হোসেন রুবেলকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার বাল্লাকান্দি চর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশের এসি (কোতোয়ালি) নোবেল চাকমা। রুবেল নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার মীরেরকান্দি এলাকার শুক্কুর আলী ভাণ্ডারির ছেলে।

এসি নোবেল চাকমা জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে বাল্লাকান্দি চর এলাকা থেকে রুবেলকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে চট্টগ্রামে নেয়া হচ্ছে।

কারা সূত্রে জানা গেছে, একটি হত্যা মামলায় গত ৬ ফেব্রুয়ারি রাতে নগরীর ডবলমুরিং থানার মিস্ত্রিপাড়া এলাকা থেকে রুবেলকে গ্রেফতার করে সদরঘাট থানা পুলিশ। এরপর তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। কারাগারের ১৫ নম্বর কর্ণফুলী ভবনের ‘পানিশমেন্ট’ ওয়ার্ডে ছিলেন তিনি।

শনিবার সকালে বন্দিদের রোলকল করার সময় কারা কর্তৃপক্ষের নজরে আসে রুবেলের অনুপস্থিতি। এরপর এ ঘটনায় নগরীর কোতোয়ালি থানায় প্রথমে জিডি ও পরবর্তীতে মামলা করেন কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার মো. শফিকুল ইসলাম খান।

পরে রোববার এ ঘটনায় জেলার রফিকুল ইসলামকে প্রত্যাহার ও দুই কারারক্ষীকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়। একই সঙ্গে খুলনা রেঞ্জের ডিআইজিকে প্রধান করে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। কমিটিকে সাত কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়। এছাড়া চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেটকে প্রধান করে ডিসির নির্দেশে তিন সদস্যের আরো একটি কমিটি গঠন করা হয়।

এদিকে সোমবার রাতে কমিটির প্রধান ও খুলনা বিভাগের ডিআইজি (প্রিজন) ছগীর মিয়া জানান, ঘটনার দিন ভোর পাঁচটায় ঘুম থেকে উঠে মুখ ধুয়ে নেন রুবেল। এরপর কর্ণফুলী ভবনের নিচতলা দিয়ে বের হয়ে কারাগারের ফাঁসির মঞ্চের পাশে নির্মাণাধীন একটি চারতলা ভবন থেকে কারাগারের সীমানা দেয়ালের বাইরে লাফ দেন।

কারাগারের সেলের একাধিক সিসিটিভি ফুটেজ পর্যবেক্ষণ করে এ তথ্য উঠে আসে বলে জানান তিনি। 

তিনি আরো জানান, রুবেলের দেয়াল টপকে পালানোর বিষয়টি প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে। তবে এ কাজে তাকে কেউ সহযোগিতা করেছেন কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর