Alexa ‘নদী দখলদারদের উচ্ছেদ করা হবে’

ঢাকা, শনিবার   ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০,   ফাল্গুন ১৬ ১৪২৬,   ০৫ রজব ১৪৪১

Akash

‘নদী দখলদারদের উচ্ছেদ করা হবে’

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২৩:১০ ২৪ জানুয়ারি ২০২০   আপডেট: ০০:৪১ ২৫ জানুয়ারি ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জাতীয় নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মুজিবুর রহমান হাওলাদার বলেছেন, কোনো অবৈধ দখলদার নদী তীর দখল করলে সে যত বড় ক্ষমতাসীন ব্যক্তি হোক তা উচ্ছেদ করা হবে। নদী তীরের সব অবৈধ ইটভাটা সরিয়ে ফেলতে হবে। 

শুক্রবার দুপুরে পটুয়াখালীর কলাপাড়ায় সাগর, নদী, খাল রক্ষা শীর্ষক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) কলাপাড়া শাখার উদ্যোগে এ সভা হয়।

নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান বলেন, কোনোভাবেই খালে মৎস্য চাষ করা যাবে না। নদীর জমি কারো না। নদীকে নদীর মতো রাখতে হবে। নদী উদ্ধার কার্যক্রম শুরু হয়েছে। 

ইউএনও মুনিবুর রহমানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন বাপা কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শরীফ জামিল, কলাপাড়া শাখার আহব্বায়ক মেজবাহ উদ্দিন মাননু, প্রেস ক্লাব সভাপতি হুমায়ুন কবির, ধানখালী ইউপি চেয়ারম্যান রিয়াজ তালুকদার, কুয়াকাটা প্রেসক্লাব সভাপতি মিজানুর রহমান বুলেট প্রমুখ। 

ড. মুজিবুর রহমান হাওলাদার আরো বলেন, উন্নয়নের নামে ও বিদ্যুৎ প্লান্টের নামে খাল-বিল দখল করা যাবে না। ১৯০৮ সালের পাঁচ এবং আট ধারায় দেশের সব খাল-বিল, হাওর-বাওর, নদী-নালা সব কিছু দেখভাল করবে পানি উন্নয়ন বোর্ড। সেখানে তারা সঠিক তদারকি করছেন না। 

কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সংশ্লিষ্টরা সঠিক ভাবে দায়িত্ব পালন না করলে পেনশন নিয়ে ঘরে যেতে পারবেন না। আগামী প্রজন্মের জন্য নদী-খাল রক্ষায় সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। সভায় বিভিন্ন ইউপি চেয়ারম্যানসহ সংবাদ কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।  

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে