ধর্ষণের ঘটনায় সংসদীয় কমিটির উদ্বেগ

ঢাকা, বুধবার   ১৯ জুন ২০১৯,   আষাঢ় ৫ ১৪২৬,   ১৪ শাওয়াল ১৪৪০

মন্ত্রণালয়কে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের তাগিদ

ধর্ষণের ঘটনায় সংসদীয় কমিটির উদ্বেগ

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:১৪ ২২ মে ২০১৯  

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

সাম্প্রতিক সময়ে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে নারী ও শিশু ধর্ষণের ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে বেড়ে যাওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি। 

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে সর্বোচ্চ শক্তি ব্যবহার করে নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ এবং সংশ্লিষ্টদের কার্যকর তদারকি নিশ্চিত করতে মন্ত্রণালয়কে পদক্ষেপ গ্রহণের সুপারিশ করা হয়েছে। 

জাতীয় সংসদ ভবনে বুধবার অনুষ্ঠিত কমিটির তৃতীয় বৈঠকে এই সুপারিশ করা হয়। 

কমিটির সভাপতি  মো. শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন, মো. হাবিবর রহমান, মো. ফরিদুল হক খান, পীর ফজলুর রহমান এবং নূর মোহাম্মদ অংশগ্রহণ করেন। 

জননিরাপত্তা বিভাগের সচিব, সংশ্লিষ্ট অধিদফতরের মহাপরিচালক, বাংলাদেশ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।

সংসদ সচিবালয় জানায়, বৈঠকে আইন-শৃঙ্খলা বিঘ্নকারী যে কোনো সম্ভাব্য অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার তথ্যকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে যথাযথভাবে তদারকি, আসন্ন ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদারকরণ, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ এবং পর্নোগ্রাফি বন্ধের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা হয়। 

কমিটি এসব যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণের পাশাপাশি মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের কার্যক্রম জোরদারকরণ, সব শ্রেণি-পেশার মানুষের মধ্যে ‘ডোপ টেস্ট’ এর বিস্তার এবং রেলওয়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা শক্তিশালীকরণে স্থানীয় জনগণকে সম্পৃক্ত করার সুপারিশ করেছে। 

বৈঠকে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনের লক্ষ্যে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ গঠিত দু’টি কমিটির সঙ্গে সমন্বয়ের মাধ্যমে ‘মুজিব বর্ষ ২০২০’ উদযাপনের বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। 

এছাড়া বৈঠকে ঢাকা শহরের যানজট সমস্যা নিরসনে ১০ম সংসদের ০২ নং সাব-কমিটির প্রতিবেদনে উল্লিখিত ১৯ দফা সুপারিশগুলোকে বাস্তবায়নের জন্য এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট প্রতিটি মন্ত্রণালয়/প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সংসদীয় স্থায়ী কমিটির আলোচনা সভা অনুষ্ঠানের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসআই