ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ৯ ১৪২৫,   ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪০

দ্বিতীয় দিন ছিল জয়াসুরিয়া, মুস্তাফিজ আর সানজামুলের

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ০২:৩৮ ১২ জুলাই ২০১৮  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

সিলেটে দুই দলের তৃতীয় আনঅফিসিয়াল টেস্টের দ্বিতীয় দিনে শ্রীলঙ্কা প্রথম ইনিংসে অলআউট হয় ৩১২ রানে। প্রথম ইনিংসে ১৬৭ রানে অলআউট হওয়া বাংলাদেশ ‘এ` দল দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে ১ উইকেটে ৫৭ রানে।

দারুণ এক সেঞ্চুরি করে শ্রীলঙ্কা ‘এ’ দলকে একাই টেনে নিয়ে গেছেন জয়াসুরিয়া। কিন্ত অসাধারণ বোলিং করে এদিন লঙ্কানদের সংগ্রহটা বেশি বড় হতে দেননি মুস্তাফিজুর রহমান ও সানজামুল ইসলাম।

এখনো ৮৮ রানে পিছিয়ে স্বাগতিকরা। সৌম্য সরকার ২৪ ও মিজানুর রহমান ১৩ রান নিয়ে তৃতীয় দিন শুরু করবেন।

প্রথম দিনে বল হাতে বাংলাদেশকে ভোগানোর পর ব্যাটিংয়ে ফিফটি তুলে নিয়েছিলেন জয়াসুরিয়া। ৩ উইকেটে ৭৮ রান নিয়ে বুধবার সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় দিন শুরু করে শ্রীলঙ্কা।

দিনের প্রথম বলেই আসালাঙ্কাকে সৌম্যর ক্যাচ বানিয়ে ফেরান মুস্তাফিজ। ৫৩ রান নিয়ে দিন শুরু করা জয়াসুরিয়া শামু আশানকে নিয়ে অবশ্য দারুণ এক জুটি গড়ে তোলেন। পাশাপাশি তিনি নিজে তুলে নেন সেঞ্চুরি।

Cricket

আশানকে ফিরিয়ে ১১৮ রানের জুটি ভাঙেন সানজামুল। দলকে ২৪০ পর্যন্ত টেনেছেন ওপেনিংয়ে নামা জয়াসুরিয়া। তাকে খালেদ আহমেদের ক্যাচ বানিয়ে ফেরান মুস্তাফিজ। ১৫৫ বলে ১৫ চার ও ৪ ছক্কায় জয়াসুরিয়া করেন ১৪২ রান।

এরপর সানজামুলের অসাধারণ বোলিংয়ে ৩৮ রানে শেষ ৪ উইকেট হারিয়ে ৩১২ রানেই অলআউট হয়ে যায় সফরকারীরা। পরের ব্যাটসম্যানের মধ্যে মনোজ শরৎচন্দ্র ৩৩ ও মিলিন্ডা পুষ্পকুমারা করেন ২৭ রান।

২৮.১ ওভারে ১০৪ রানে ৪ উইকেট নিয়েছেন বাঁহাতি স্পিনার সানজামুল। মুস্তাফিজ ১১ ওভারে ৪৪ রানে নিয়েছেন ৩ উইকেট। নাঈম হাসান দুটি ও সৌম্য একটি উইকেট পেয়েছেন।

জবাবে শুরুটা ভালোই করেছিলেন সৌম্য ও সাদমান ইসলাম। কিন্তু সাদমান থিতু হয়েও ইনিংস বড় করতে পারেননি। প্রথম ইনিংসে করেছিলেন ১৪, দ্বিতীয় ইনিংসে তার ব্যাট থেকে আসে ৩৬ বলে ১৯ রান।

সাদমানের বিদায়ে মিজানুরের সঙ্গে বাকি দিনটা নিরাপদে পার করে দেন সৌম্য। দ্বিতীয় উইকেটে ২০ রানের জুটিতে অবিচ্ছিন্ন আছেন এই দুজন।

ডেইলি বাংলাদেশ/সালি