.ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২১ মার্চ ২০১৯,   চৈত্র ৭ ১৪২৫,   ১৪ রজব ১৪৪০

দেওয়ানগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে ডাকাতি, আহত পাঁচ

দেওয়ানগঞ্জ প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১২:৪৭ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১২:৪৭ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে রোববার ভোরে মুক্তিযোদ্ধার বাড়িসহ দুই বাড়িতে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এতে নারী পুরুষ শিশুসহ পাঁচজন আহত হয়েছে। 

চিকাজানী ইউনিয়ন উত্তর চিকাজানী অপরটি পৌর এলাকার চররাঞ্চল পূর্ব চুনিয়াপাড়া বেরিবাধের ধারে এই ঘটনা ঘটে।

মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আলী খানের ছেলে আশরাফুল আলম সাজু বলেন, বাসার গ্রীলের তালা ভেঙ্গে ৪-৫জন মুখোশ পড়া হাতে ধারালো শাবল ও রড নিয়ে বাসায় প্রবেশ করে। ঘরের আলমারি ভাঙ্গার শব্দ পেয়ে বারান্দায় গেলে সাজু একজনকে জাপটে ধরলে অপর ডাকাতরা মাথায় শাবল দিয়ে জোরে আঘাত করে। 

এ সময় স্ত্রী জান্নাত স্বামীকে বাঁচাতে এগিয়ে গেলে তার মাথায় ও শরীরে আঘাত করে ডাকাতকে নিয়ে যায়। স্থানীয় লোকজন গুরুতর আহত স্বামী-স্ত্রীকে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে চিকিৎসকরা তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য জেলা সদর হাসপাতালে পাঠান। 

অপর ঘটনাটি পৌর এলাকার পূর্ব চুনিয়াপাড়া গ্রামের ব্যবসায়ী হাফেজ মুহাম্মদ ওয়াহেদুজ্জামানের বাড়িতে ঘটে। ওয়াহেদ বলেন, ভোরে ঘরের সিধ কেটে দা, বটি, খুর নিয়ে ৩-৪জন ডাকাত বাড়িতে ঢুকে তাকে ও তার ছেলে বরাতের হাত-পা, মুখ বেধে গলায় দা ধরে জিম্মি করে। 

তাদের দুই বছরের নাতিন তুষার কান্না যাতে না করে তার গলায়ও দা ধরে রাখে ডাকতরা। ঘরে রাখা নগদ অর্থ এবং স্বর্নালংকার নিয়ে যায়। 

ওয়াহেদের স্ত্রী রুমা বলেন, ডাকাতি করে যাওয়ার সময় ডাকাতরা বলেছে মামলা করলে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। 

দেওয়ানগঞ্জ মডেল থানার ওসি একেএম আমিনুল হক বলেন. ঘটনা দুটি ডাকাতি নয় চোর ছেঁচড়াদের কাজ হতে পারে। তবে তাদের ধরতে অফিসাররা কাজ করছে। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস