Alexa দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য কুরআনের পাণ্ডুলিপি বিতরণ করবে কাতার

ঢাকা, শনিবার   ২০ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ৫ ১৪২৬,   ১৬ জ্বিলকদ ১৪৪০

দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য কুরআনের পাণ্ডুলিপি বিতরণ করবে কাতার

 প্রকাশিত: ২০:৪০ ১৯ অক্টোবর ২০১৭   আপডেট: ২০:৪১ ১৯ অক্টোবর ২০১৭

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

‘মুসহাফ আল বাসিরাত’ নামে অডিও সুবিধাসহ পবিত্র কুরআনুল কারিমের ব্রেইল বর্ণমালার ৪ হাজার পাণ্ডুলিপি বিশ্বের বিভিন্ন দেশের দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের মাঝে বিতরণ করার বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছে মধ্যপ্রাচ্যের দ্বীপদেশ কাতার। দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের জন্য গ্রহণ করা এ উদ্যোগ নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়।

ব্রেইল বর্ণমালার কুরআনের এ পাণ্ডুলিপিগুলো সর্বপ্রথম ২০১৩ সালে বাজারে আসে। ব্রেইল বর্ণমালার পাণ্ডুলিপির সঙ্গে অডিও ভার্সন ‘কলম কুরআন’ও বাণিজ্যিকভাবে বাজারে আসে।

‘কলম কুরআন’ হলো ব্রেইল বর্ণমালার কুরআনের পাণ্ডুলিপির যেই স্থানে কলমটি দ্বারা স্পর্শ করা হবে, ঠিক সেই স্থানের তেলাওয়াত কলমের মাধ্যমে শোনা যাবে। এ সুবিধা সম্বলিত কলমও থাকবে এ প্রকল্পের আওতায়।
‘কলম কুরআন’-এর মাধ্যমে দৃষ্টি প্রতিবন্ধীরা বিশ্বের বিখ্যাত কারীদের তেলাওয়াত, আয়াতে মর্মার্থ, নাজিলের কারণ এবং বিভিন্ন ধর্মীয় মাসআলার অডিও শুনতে পারবে।

কাতারের দাবত্য ইন্সটিটিউট ব্রেইল বর্ণমালার কুরআনের পাণ্ডুলিপি ও কলম কুরআনের ৪ হাজার কপি মালয়েশিয়ার এক কোম্পানির সহযোগিতায় বিতরণ করবে।

কাতারের দাতব্য ইন্সটিটিউটের ভাষ্য মতে, ‘সারা বিশ্বে প্রায় সাড়ে ৩ কোটি দৃষ্টি প্রতিবন্ধী রয়েছে। এদের মধ্যে তিউনিসিয়া, তুরস্ক, যুক্তরাজ্য এবং মরক্কোর ৪ হাজার দৃষ্টি প্রতিবন্ধীদের মধ্যে অডিও সুবিধা সম্বলিত ব্রেইল বর্ণমালার এই পাণ্ডুলিপি বিতরণ করা হবে।

অডিও সুবিধাসহ ব্রেইল বর্ণমালার কুরআনের এ পাণ্ডুলিপিগুলো অধিক মূল্য হওয়ায় এক সঙ্গে সবার হাতে তা তুলে দেয়া সম্ভব নয় বলে উল্লেখ করেন কাতার দাতব্য ইন্সটিটিউট।

উল্লেখ্য যে, কাতার দাতব্য ইন্সটিটিউট ২০১৪ সাল থেকে এ প্রকল্প হাতে নিয়েছে। এ পর্যন্ত তারা ব্রেইল বর্ণমালায় লিখিত পবিত্র কুরআনের ৬ হাজার পাণ্ডুলিপি বাংলাদেশসহ ইন্দোনেশিয়া, সুদান ও কাতারের দৃষি।ট প্রতিবন্ধীদের মাঝে বিতরণ করেছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএজে