ঢাকা, শুক্রবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ১০ ১৪২৫,   ১৬ জমাদিউস সানি ১৪৪০

দুর্যোগকালে সহায়ক অ্যামেচার রেডিও

নিজস্ব প্রতিবেদক

 প্রকাশিত: ১৯:২১ ৮ ডিসেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৯:৪১ ৮ ডিসেম্বর ২০১৮

অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস নিয়ে বিটিআরসিতে সংবাদ সম্মেলন

অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস নিয়ে বিটিআরসিতে সংবাদ সম্মেলন

বাংলাদেশ টেলিযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনে (বিটিআরসি) ২০১৮ সালের অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ২৬৬ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেন। এর আগে পাঁচবার এই পরীক্ষার আয়োজন করা হয়েছিল।

শনিবার সকালে ঢাকার রমনার আই ই বি ভবনে পরীক্ষার আয়োজন করা হয়। দেড় ঘণ্টার পরীক্ষা শেষে বিটিআরসি চেয়ারম্যান জহুরুল হক এবং তরঙ্গ বিভাগের মহাপরিচালক নাসিম পারভেজ সাংবাদিকদের অ্যামেচার রেডিও সম্পর্কে বিভিন্ন বিষয়ে অবহিত করেন।

এসময় বিটিআরসি চেয়ারম্যান জহুরুল হক বলেন, অ্যামেচার রেডিও বা হ্যাম রেডিও অপারেটররা দুর্যোগকালে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী কাজে অংশ নেন। এদেশের অ্যামেচার রেডিও অপারেটর বাড়ানোর জন্য বিটিআরসি এখন থেকে নিয়মিত পরীক্ষার আয়োজন করবে। তিনি জানান, এবছর অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস পরীক্ষার জন্য ৩০০ জন পরীক্ষার্থী আবেদন করেছিল। যাদের মধ্যে ২৯৯ জন পরীক্ষার্থীর আবেদন বৈধ ঘোষণা করা হয়। আর পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে ২৬৬ জন।

এক প্রশ্নের জবাবে স্পেকট্রাম বিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোঃ নাসিম পারভেজ বলেন, দেশে অ্যামেচার রেডিও জনপ্রিয় করতে আগামীতে অ্যামেচার রেডিও পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের প্রাথমিক লাইসেন্স এবং উচ্চতর লাইসেন্স দেয়ার কথা আমরা চিন্তা করছি। এজন্য ইন্টারন্যাশনাল টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়নের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করা হবে। অ্যামেচার রেডিও পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস সার্টিফিকেট দেয়া হবে। পরবর্তীতে তাদের আবেদনের প্রেক্ষিতে ‘কল সাইন’ এবং অ্যামেচার রেডিও লাইসেন্স প্রদান করা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, পাসপোর্ট ছাড়া কেউ অ্যামেচার বা হ্যাম রেডিও আমদানি করতে পারবে না। আর অ্যামেচার রেডিও এর কথা অন্যান্য অপারেটররা শুনতে পায় তাই এটি জঙ্গিবাদে ব্যবহার করা সম্ভব না। আর চাহিদার ভিত্তিতে এই সার্ভিস আরো বাড়ানো হবে।

১৯৯১ সালে সাবেক বাংলাদেশ তরঙ্গ ও বেতার বোর্ডের ১৮ তম সভায় দেশে প্রথম অ্যামেচার রেডিও সার্ভিস চালু করা হয়। ১৯৯৫ সালে প্রথম পরীক্ষার আয়োজন করা হয়েছিল। এরপর ২০০৩, ২০০৮, ২০১৩ এবং সর্বশেষ ২০১৭ সালে অ্যামেচার সার্ভিস পরীক্ষা নিয়েছিল বিটিআরসি।

দেশে বর্তমানে ৪০০ এর বেশি হ্যাম রেডিও অপারেটর রয়েছেন। যারা ব্যক্তিগত উদ্যোগে এই রেডিও পরিচালনা করছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এস