ঢাকা, শনিবার   ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ১০ ১৪২৫,   ১৭ জমাদিউস সানি ১৪৪০

সিলেটে দুই বন্ধুর দ্বন্দ্বে ধানের শীষে ভরাডুবির শঙ্কা

সিলেট প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ

 প্রকাশিত: ১৭:৫৪ ১১ জুলাই ২০১৮   আপডেট: ১৭:৫৫ ১১ জুলাই ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

সিলেট সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিএনপির দলীয় প্রতীক ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচন করছেন আরিফুল হক চৌধুরী।

প্রকাশ্যে চ্যালেঞ্জ দিয়েই তার প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নেমেছেন মহানগর সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম। তারা দুজন ছিলেন ঘনিষ্ঠ বন্ধু। নিজেদের মধ্যে রাজনৈতিক বিরোধ থাকায় এবার সেলিম প্রার্থী হয়েছেন। এছাড়াও আরিফের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক ও সিলেট জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক শামসুজ্জামান জামান। সিলেট বিএনপিকে ঐক্যবদ্ধ করতে বারবার কেন্দ্রীয় বিএনপি উদ্যোগ গ্রহণ করলেও সিলেটে ধানের শীষের শ্রমিকদের এক করতে পারেনি। ফলে রয়েছে ভরাডুবির শঙ্কা।

মূলত সিলেট বিএনপির এই গ্রুপিংয়ের রাজনীতি গত প্রায় দেড় যুগ ধরে তাদের নিত্যসঙ্গী। সেই গ্রুপিং এবার চরম আকার ধারণ করেছে সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) নির্বাচনে। ফলে সিটি নির্বাচনে বিএনপির কোন্দল প্রকাশ্যে রূপ নিয়েছে।

সিলেট ল’কলেজের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আবু ইয়ামিন চৌধুরী বলেন, গত সিটি নির্বাচনে বিএনপি ঐক্যবদ্ধ ছিল বলেই সিলেটে বিএনপির প্রার্থী বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন। এবার নির্বাচনের আগেই সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রদলের প্রশ্নবিদ্ধ একটি কমিটি দিয়েছে কেন্দ্রীয় ছাত্রদল। আমরা এই কমিটিকে প্রত্যাখ্যান করে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছি। যদি নির্বাচনের আগে এই কমিটি বাতিল না করা হয় তাহলে আমি মনে করি পদবঞ্চিতরা বিএনপি প্রার্থী আরিফুল হক চৌধুরীর সঙ্গে থাকবেন না। এমনকি অনেকেই ভোটও দিতে যাবেন না।

তবে আরিফুল হক চৌধুরীর নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক বিএনপির উপদেষ্টা এম এ হক বলেন, দলের ঐক্য ধরে রাখতে সর্বাত্মক চেষ্টা করা হচ্ছে। আমরা আশাবাদী জোটের শরিক দল জামায়াত নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়ে ২০ দলীয় জোটের প্রার্থীকে সমর্থন দেবে। জামায়াত যেন নির্বাচন থেকে সরে না দাঁড়ায় সেজন্য তাদের একটি মহল নানাভাবে চাপে রেখেছে। যার কারণে তারাও একটু চিন্তিত।

আরিফুল হক বলেন, বিএনপি একটি বৃহৎ রাজনৈতিক দল। এখানে মনোনয়ন নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা থাকতে পারে। তবে আমাদের মধ্যে কোনো প্রতিহিংসা নেই। দলের ঐক্যের প্রতীক ধানের শীষের পক্ষেই সবাই কাজ করে যাচ্ছেন। বিএনপি নেতাকর্মী, সমর্থকসহ নগরবাসী ধানের শীষে ভোট দেয়ার জন্য উদগ্রিব হয়ে আছেন। অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচন হলে ধানের শীষের জয় নিশ্চিত।

বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক (বহিষ্কৃত) বদরুজ্জামান সেলিম বলেন, দল আমাকে মূল্যায়ন করেনি। আগামী ৩০ জুলাই সিলেটের মানুষ তাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে আমাকে নির্বাচিত করবেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরআর