Alexa দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ত্রাসীর গুলিতে বাংলাদেশি যুবক নিহত

ঢাকা, শুক্রবার   ২৩ আগস্ট ২০১৯,   ভাদ্র ৮ ১৪২৬,   ২১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

Akash

দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ত্রাসীর গুলিতে বাংলাদেশি যুবক নিহত

 প্রকাশিত: ১৭:৪৫ ৭ সেপ্টেম্বর ২০১৭   আপডেট: ১১:৩৫ ৮ সেপ্টেম্বর ২০১৭

দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে আজিজুল বেপারী (৩৬) নামের এক বাংলাদেশি যুবক নিহত হয়েছেন। আজিজুল মাদারীপুরের রাজৈর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের বেপারী পাড়া এলাকার আবুল হোসেন বেপারীর ছেলে।

স্বজনরা জানায়, ৪ বছর আগে জমিজমা বিক্রি করে দক্ষিণ আফ্রিকায় পারি জমান দুই সন্তানের জনক আজিজুল। সেখানে গিয়ে একটি মুদি দোকান দিয়েছিলেন তিনি। বুধবার বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১১টার দিকে দক্ষিণ আফ্রিকার ক্যাপটাউন এলাকায় একদল অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী আজিজুলের কাছে চাঁদা দাবি করে। চাঁদা দিতে না পারায় আজিজুলের বুকে কয়েক রাউন্ড গুলি করে পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। পরে মৃত্যুর খবর মোবাইলে গ্রামের বাড়ি পৌঁছলে কান্নায় ভেঙে পড়েন স্বজনরা।

এ ঘটনায় দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেছেন স্বজন ও এলাকাবাসী। পাশাপাশি আজিজুলের লাশ দ্রুত দেশে ফিরিয়ে আনতে সরকারের কাছে সহযোগিতা চেয়েছেন তারা।

নিহত আজিজুলের বাবা আবুল হোসেন বেপারী বলেন, আমার বাঁজান পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়তো। ওর লগে কারো কোনো শত্রুতা নাই। কেন আমার বাজানরে ওরা মারলো? আমার বাজানের হত্যাকারীর বিচার চাই।

আজিজুলের ছোট ভাই জহিরুল ইসলাম বলেন, আমার ভাইয়ের দুই ছেলে। ওরা দুইজনই পড়ালেখা করে। আইজ ওগো বাপ নাই। বাপ হারা পোলা দুইডার কি হইবে।

আজিজুলের স্ত্রী নয়ন মনি বলেন, আমার স্বামীর লগে বুধবার রাইতেও কথা হইছে। আইজ হে নাই। লোকে কয় মইরা গেছে। এহন আমি কি করুম। আমার দুই ছেলেরে লইয়া আমি এহন কই যামু? ওগরে এহন দেখবে কেরা?

রাজৈর পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আহম্মেদ কবিরাজ বলেন, আমাদের এলাকার শান্ত স্বভাবের ছেলে ছিলো আজিজুল। এলাকার যে কোনো উন্নয়নমূলক কাজে আজিজুলের সহযোগিতা পাওয়া যেত। তার এমন মৃত্যু আমরা কখনই কাম্য করিনি। এখন সরকারের কাছে একটাই চাওয়া আজিজুলের লাশ দেশে দ্রুত ফিরিয়ে আনা হোক। পাশাপাশি এই হত্যাকাণ্ডের সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএ

Best Electronics
Best Electronics