ডিসিদের রাজস্ব বিষয়ে সম্পৃক্ত হওয়ার দাবি অযৌক্তিক

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০২ জুলাই ২০২০,   আষাঢ় ১৯ ১৪২৭,   ১১ জ্বিলকদ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

ডিসিদের রাজস্ব বিষয়ে সম্পৃক্ত হওয়ার দাবি অযৌক্তিক

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:০৬ ১৮ জুলাই ২০১৯   আপডেট: ১৩:৫১ ১৯ জুলাই ২০১৯

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

ডিসিদের রাজস্ব সংশ্লিষ্ট বিষয়ে সম্পৃক্ত হতে চাওয়াকে অযৌক্তিক ও অর্থহীন বলেছে বিসিএস (কাস্টমস অ্যান্ড ভ্যাট) ও বিসিএস (ট্যাক্সেশন) অ্যাসোসিয়েশন। 

বৃহস্পতিবার যৌথ সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংগঠন দুটো তাদের মতামত তুলে ধরেন।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সরকার পরিচালনা এবং জনগণের সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সরকার প্রয়োজনীয়তার নিরিখে ২৮টি ক্যাডার সৃষ্টি করেছে। প্রত্যেকটি ক্যাডারের নিজস্ব কর্মের পরিধি এবং প্রকৃতি সুনির্দিষ্ট ভাবে নির্ধারিত। রুলস্ আব বিজনেস অনুযায়ী সরকারের অভ্যন্তরীণ রাজস্ব আহরণ এবং এ সংক্রান্ত নীতি নির্ধারণী কার্যক্রম পরিচালিত হয় বিসিএস (ট্যাক্সেশন) ও বিসিএস (কাস্টমস অ্যান্ড ভ্যাট) ক্যাডারের মাধ্যমে।

এ দুটি ক্যাডারের কর্মকর্তারা জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের নীতি নির্ধারণী নির্দেশনা অনুসরণ করে নিজস্ব আইনের আওতায় সরকার নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা অনুযায়ী রাজস্ব আদায় করে থাকে। আয়কর অধ্যাদেশ-১৯৮৪, মূল্য সংযোজন কর ও সম্পূরক শুল্ক আইন-২০১২ ও কাষ্টমস আইন ১৯৬৯ অনুযায়ী রাজস্ব আদায়ের ক্ষমতা এ দুটি ক্যাডারের কর্মকর্তাদের উপর ন্যস্ত করা হয়েছে। বর্তমান সরকার জাতীয় রাজস্ব আদায়ের স্বার্থে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের দাফতরিক নিয়ন্ত্রণ উপজেলা পর্যন্ত বিস্তৃত করেছে এবং এর নিজস্ব দাফতরিক কাঠামো ও জনবল দিয়ে সরকারের প্রয়োজনীয় রাজস্ব সংস্থানের জন্য নিরন্তর প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। 

প্রশাসন ক্যাডারভুক্ত ডেপুটি কমিশনারদের সম্মেলনে পত্রিকান্তরে প্রকাশিত সংবাদের মর্মার্থ অনুযায়ী জানা যায়, জেলার ডেপুটি কমিশনার এবং উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তারা জেলা এবং উপজেলা পর্যায়ে কমিটি গঠন করে রাজস্ব আদায় পরিবীক্ষণ করতে ইচ্ছা প্রকাশ করে প্রস্তাব পেশ করেছেন। এ ধরনের প্রস্তাব কেবল অন্যান্য পেশা ভিত্তিক প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব আইনের আওতায় পরিচালিত কার্যক্রমে উপর অবৈধ এবং এখতিয়ার বহির্ভুত হস্তক্ষেপই নয়, বরং এর মাধ্যমে জাতীয় রাজস্ব আহরণ কার্যক্রমে একটি বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির আশঙ্কা রয়েছে। 

বর্তমান সরকারের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড বাস্তবায়নের জন্য রাজস্ব ক্যাডার কর্মকর্তাদের মনোবল বিনষ্টকারী এধরনের কর্মকাণ্ড সার্বিক উন্নয়ন কার্যক্রমকে ব্যাহত করবে বলে বিসিএস (কাস্টমস অ্যান্ড ভ্যাট) ও বিসিএস (ট্যাক্সেশন) অ্যাসোসিয়েশন মনে করে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসএস/এমআরকে