টাকার কাছে হারলো বন্ধুত্ব

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৮ জুন ২০১৯,   আষাঢ় ৫ ১৪২৬,   ১৪ শাওয়াল ১৪৪০

টাকার কাছে হারলো বন্ধুত্ব

সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১৫:৩৭ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৫:৩৭ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে পাওনা টাকা চাওয়ায় এসএসসি পরীক্ষার্থী পলাশ মিয়াকে রোববার রাতে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে পলাশের বন্ধু সাগর ও তার বাবা। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে সে মারা যায়।

পলাশ উপজেলার পোগলদিঘা ইউনিয়নের কান্দারপাড়া গ্রামের দিনমজুর সাইফুল ইসলামের ছেলে। সে পোগলদিঘা বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিল।

পলাশের বন্ধু হৃদয় বলেন, পলাশ তার বন্ধু পোগলদিঘার রুদ্র বয়ড়ার আব্দুর রশিদের ছেলে সাগরের কাছে দুই হাজার টাকা পাওনা ছিল। এ নিয়ে তাদের মধ্যে মনোমালিন্য চলছিল। রোববার সন্ধ্যায় পলাশ আওনার দৌলতপুর গ্রামে প্রাইভেট পড়তে যায়।

এ সময় পলাশকে সাগর পাওনা টাকা দেয়ার কথা বলে মোবাইলে রুদ্র বয়ড়ায় ডেকে নেয়। উভয়ের মধ্যে কথা কাটাকাটি হলে সাগর ও তার বাবা রশিদ ধারালো কুড়াল দিয়ে পলাশের মাথায় এলোপাথারী কুপিয়ে ফেলে রাখে।

পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে যমুনা সার কারখানা ক্লিনিকে ভর্তি করে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক রাতেই তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন।

নিহতের বাবা সাইফুল ইসলাম বলেন, পলাশের বন্ধু ফাহিমের ছোটভাইয়ের জন্য স্কুল থেকে জেএসসির প্রশংসাপত্র তুলতে সাগরকে দুই হাজার টাকা দিয়েছিল। প্রশংসাপত্র না তুলে সে টাকাগুলো খরচ করে ফেলে।

পরে এ টাকা দেয়ার নাম করে পরিকল্পিতভাবে তার ছেলেকে ডেকে নিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। তার পরিবার হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তি দাবি করেন।

তারাকান্দি থানার ওসি (তদন্ত) মোহব্বত কবীর বলেন, হত্যাকারীরা রাতেই এলাকা ছেড়ে পালিয়ে গেছে। তবে সাগরের দাদি রওশনারাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় হত্যাকারীদের আটকে অভিযান ও মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস