ঢাকা, সোমবার   ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,   ফাল্গুন ৫ ১৪২৫,   ১২ জমাদিউস সানি ১৪৪০

নবীনগরে খারঘর গণহত্যা দিবস পালিত

এম নাইমুর রহমান

 প্রকাশিত: ১৮:৪৮ ১০ অক্টোবর ২০১৮   আপডেট: ২০:০০ ১০ অক্টোবর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার বড়াইল ইউপির খারঘর গ্রামে বুধবার সকালে পালিত হয়েছে খারঘর গণহত্যা দিবস। 

সকালে নবীনগর উপজেলা প্রশাসনের পক্ষে শ্রদ্ধা জানাতে আসেন ইউএনও মোহাম্মদ মাসুম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) জেপি দেওয়ান, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোকারম হোসেন, ওসি (তদন্ত) রাজু আহমেদ প্রমুখ।

পরে গণকবর স্থানে খারঘর গণহত্যা দিবস উপলক্ষে শহীদ স্মরণে  আলোচনা সভা ও দোয়া মাহ্ফিল অনুষ্টিত হয়। এতে  প্রধান অতিথি ছিলেন সাবেক এমপি অড্যাভোকেট শাহ্ জিকরুল আহম্মদ খোকন। খারঘর গণকবর সংরক্ষণ ও বাস্তবায়ন কমিটির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মহিউদ্দিন আহমেদ জীবনের পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ  আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য আলামিনুল হক আলামিন, জাসদের তথ্য ও গবেষনণ সম্পাদক ও বিজয়নগর সভাপতি আবদুর রহমান খান ওমর, জেলা জাসদের প্রচার সম্পাদক ও বিজয়নগর সাধারণ সম্পাদক প্রবীর চৌধুরী রিপন, নবীনগর প্রেসক্লাব সভাপতি মাহাবুব আলম লিটন, নবীনগর জাসদ সভাপতি শফিকুল ইসলাম, নবীনগা জাসদ সাধারণ সম্পাদক সামছুল হক দুলাল, সাংগঠনিক সম্পাদক সামছুল আলম ,নবীনগর যুবজোট সভাপতি একেএম জসিম উদ্দিন,আবদুল আওয়াল,নূরুল ইসলাম মেম্বার,আবুল কালাম মুন্সি,গোলাম সান্দানী প্রমুখ। 

খারঘর গণকবর সংরক্ষন ও বাস্তবয়ন কমিটি আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্টানে সভাপতিত্ব করেন বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ নুরুল হক।

১৯৭১ সালে ১০ অক্টোবর পাক হানাদার বাহিনীর জাহাজ এসে খারঘর গ্রামে নারকীয় হত্যাযজ্ঞ চালায়। এ গ্রামের মুক্তিযোদ্ধাসহ ৪৩ জনকে একসাথে নির্মমভাবে হত্যা করা হয় এবং আহত হয় শতাধিক।তাদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করতে মুক্তিযোদ্ধাসহ বিভিন্ন শ্রেনীপেশার মানুষ খারঘর গণকবরে (১০/১০) বুধবার জড়ো হন। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম