Alexa ‘জলবায়ু সচেতনতা সৃষ্টির অন্যতম মাধ্যম আলোকচিত্র’

ঢাকা, বুধবার   ১১ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ২৬ ১৪২৬,   ১৩ রবিউস সানি ১৪৪১

‘জলবায়ু সচেতনতা সৃষ্টির অন্যতম মাধ্যম আলোকচিত্র’

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৪৮ ২০ নভেম্বর ২০১৯   আপডেট: ২১:৪৯ ২০ নভেম্বর ২০১৯

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন বলেছেন, জলবায়ু পরিবর্তনজনিত সমস্যাগুলো কার্যকর উপায়ে তুলে ধরার অন্যতম উপায় আলোকচিত্র। একটি সুন্দর আলোকচিত্র অনেক বার্তাবহ হতে পারে। 

তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক ফোরামে জলবায়ু পরিবর্তন সম্পর্কিত বিষয়গুলো আলোচনার সময়ে আমরা এ ধরনের প্রতিনিধিত্বকারী আলোকচিত্র তুলে ধরতে পারি।

বুধবার ঢাকায় জার্মান অ্যাম্বাসি ও ব্রিটিশ হাইকমিশন আয়োজিত জলবায়ু সচেতনতামূলক আলোকচিত্র প্রদর্শনী উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় মন্ত্রী পরিবেশ সম্পর্কিত আন্তর্জাতিক ফোরামে বাংলাদেশে জলবায়ু পরিবর্তনজনিত সমস্যার বাস্তব ঘটনা তুলে ধরার জন্য উন্নয়ন সহযোগীদের অনুরোধ জানান। তিনি বলেন, বাংলাদেশ ঘূর্ণিঝড় এবং বন্যার মতো  প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলা করার সফলতা দেখিয়েছে। তবে জলবায়ু পরিবর্তনজনিত দীর্ঘমেয়াদি দুর্যোগের পরিমাণ বৃদ্ধি পাওয়ায় সচেতনতা কার্যক্রম বাড়ানো সময়ের দাবি।

পরিবেশ মন্ত্রী আরো বলেন, এ ধরনের  প্রদর্শনী আমাদের সমাজের বিভিন্ন অংশের প্রচুর লোককে সচেতন করতে এবং আমাদের সবাইকে জলবায়ু পরিবর্তনে ইতিবাচক পদক্ষেপ গ্রহণে উদ্বুদ্ধ করবে।

অনুষ্ঠানে মন্ত্রী প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার তুলে দেন। শেষে জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ে নির্মিত ডকুমেন্টারি এবং প্রদর্শনীর আলোকচিত্র ঘুরে দেখেন। অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগীদের মধ্যে থেকে প্রাথমিকভাবে ২০টি ছবি এবং চূড়ান্তভাবে তিনটি আলোকচিত্র পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত করা হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জার্মানের রাষ্ট্রদূত মি. পিটার ফাহারেনহোল্ট, ইরানের ডেপুটি হাইকমিশনার খন্দার হোসেইন বর, বাংলাদেশ পরিবেশ আইনজীবী সমিতির (বেলা) নির্বাহী পরিচালক সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান ও ব্রিটিশ কাউন্সিলের উপপরিচালক অ্যান্ড্রো নিউটন প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানে প্রতিযোগিতার বিচারক, সরকারি কর্মকর্তা, কূটনৈতিক মিশন, দ্বিপক্ষীয় এবং বহুপাক্ষিক সংস্থা ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসআই