চেস্টার বেনিংটনের আত্মহত্যা না স্বাভাবিক মৃত্যু!

ঢাকা, শুক্রবার   ২৪ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ১০ ১৪২৬,   ১৯ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

চেস্টার বেনিংটনের আত্মহত্যা না স্বাভাবিক মৃত্যু!

 প্রকাশিত: ১৫:৩৮ ২১ জুলাই ২০১৭  

রক মিউজিকের জগতে ইন্দ্রপতন। নিজের বাড়ি থেকেই লিঙ্কিন পার্কের লিড ভোকালিস্ট চেস্টার বেনিংটনের দেহ উদ্ধার হয়েছে। বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় সকাল ৯টা নাগাদ লস অ্যাঞ্জেলসের পালোস ভার্দোস স্টেটে তার অ্যাপার্টমেন্ট থেকে উদ্ধার হয় দেহ। চেস্টার গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলেই প্রাথমিক ভাবে মনে করছে পুলিশ। মাত্র ৪১ বছর বয়সে থেমে গেল চেস্টারের সৃষ্টি। ব্যান্ডের তরফে চেস্টারের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করা হয়েছে। পরিবার বাইরে থাকায়, শেষ কিছু দিন ধরে ফ্ল্যাটে একাই ছিলেন চেস্টার। ঘুরে ঘুরে প্রচারের কাজ চলছিল নতুন অ্যালবাম ‘ওয়ান মোর লাইট’-এর। আগামী ২৭ জুলাই ম্যাসাচুসেটসে শেষ হওয়ার কথা ছিল প্রচার। কিন্তু তার আগেই সব শেষ। প্রথম বিয়ে ভেঙে যাওয়ার পর ফের এক বার বিয়ে করেন চেস্টার। তার ছ’জন সন্তান রয়েছেন। ১৯৭৬ সালে ক্যালিফোর্নিয়ায় রক ব্যান্ড ‘লিঙ্কিন পার্ক’-এর জন্ম। ২০০০-এ ‘হাইব্রিড থিওরি’ অ্যালবাম প্রকাশের পরই আন্তর্জাতিক ভাবে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে ব্যান্ড। লিড ভোকালিস্ট চেস্টার বেনিংটনের লাইভ শো মন কেড়ে নেয় হাজার হাজার মানুষের। দেশ-বিদেশ ঘুরে ‘লিঙ্কিন পার্ক’-এর এক একটি লাইভ শো রূপ নেয় এক একটি উৎসবের। রক, হিপ-হপ এবং ইলেকট্রনিকার ককটেলে ‘লিঙ্কিন পার্ক’ হয়ে ওঠে ‘অল টাইম ফেভারিট’। এখনও পর্যন্ত সাতটি রিলিজ হওয়া অ্যালবাম রক মিউজিকের জগতে অন্যতম সেরা সম্পদ। চলতি বছরের মে মাসেই চেস্টারের বন্ধু ও গায়ক ক্রিস কর্নেলও আত্মঘাতী হন। বন্ধু বিচ্ছেদের পর ভেঙে পড়েছিলেন চেস্টার। কর্নেলের শেষকৃত্যে পারফর্মও করে বলেছিলেন, ‘‘আমি তোমাকে ছাড়া পৃথিবী ভাবতেই পারি না।’’ ঘটনার অদ্ভুত সমাপতন হল, চেস্টারের মৃত্যুদিনই ছিল, বন্ধু ক্রিসের ৫৩তম জন্মদিন!                                               প্রিয় বন্ধু। ক্রিস কর্নেল ও চেস্টার বেনিংটন। ছবি: ইনস্টাগ্রাম গুণমুগ্ধরা বলে থাকেন, চেস্টারের কণ্ঠে এক দিকে যেমন কোমলতা রয়েছে, তেমনই রয়েছে উন্মাদনা, ভরপুর প্রাণশক্তি। কিন্তু বৃহস্পতিবার সব ক্ষমতাই হার মানল চূড়ান্ত অবসাদের কাছে। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে টুইটে শোক প্রকাশ করেছেন তার বন্ধু এবং অনুরাগীরা। ডেইলি বাংলাদেশ/এসআই
Best Electronics