চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীর মা’র শ্লীলতাহানির অভিযোগ

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৩ মে ২০১৯,   জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৬,   ১৭ রমজান ১৪৪০

Best Electronics

চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীর মা’র শ্লীলতাহানির অভিযোগ

বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৭:৩৭ ১৬ মে ২০১৯   আপডেট: ০৮:৫৭ ১৬ মে ২০১৯

অভিযুক্ত চিকিৎসক

অভিযুক্ত চিকিৎসক

পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এক চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীর মাকে কৌশলে ডেকে নিয়ে শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠেছে।

মঙ্গলবার রাতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কোয়ার্টারের তার চেম্বারে এ ঘটনাটি ঘটে।

গৃহবধূর স্বজনরা জানান, মঙ্গলবার সকালে ১১ মাস বয়সী অসুস্থ কন্যাকে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসক আবদুর রউফের অধীনে ভর্তি করেন গৃহবধূ। সন্ধ্যার দিকে চিকিৎসক গৃহবধূকে ফোন করে হাসপাতাল তার কোয়ার্টারের চেম্বারে দেখা করতে বলেন। এরপর রাত ৮টায় তার খালাকে সঙ্গে নিয়ে চিকিৎসকের চেম্বারে যান গৃহবধূ। সঙ্গে খালাকে দেখে চিকিৎসক রাগ করেন এবং পুনরায় হাসপাতাল থেকে ভর্তির কাগজসহ একা আসতে বলেন।

তারা আরো জানান, প্রায় ১০ মিনিট পর জনশূণ্য চেম্বারে গৃহবধূ গেলে চিকিৎসক তাকে কুপ্রস্তাব দেন। এ সময় বিদ্যুৎ চলে গেলে রউফ তাকে জাপটে ধরে শরীরের স্পর্শকাতর স্থানে হাত দেন। তাৎক্ষণিক গৃহবধূ ধস্তাধস্তি করে চিকিৎসককে ফেলে বাইরে এসে মামাকে মুঠোফোনে ঘটনাটি জানান। মামা এসে চিকিৎসককে লাঞ্চিত করেন। এরপর ঘটনাটি ছড়িয়ে পরলে কয়েকজন সাংবাদিকসহ ২০ থেকে ২৫ জন ঘটনাস্থলে জড়ো হয়ে বিষয়টি পটুয়াখালী সিভিল সার্জন এবং বাউফলের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাকে জানান। ঘটনার পর বুধবার হাসপাতাল থেকে ওই গৃহবধূর শিশুকে পটুয়াখালী জেনালের হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

চিকিৎসক আবদুর রউফ বলেন, ঘটনাটি মিথ্যা। আমার ভাবমূর্তি নষ্ট করতে একটি মহল অপপ্রচার চালিয়েছে। রোগীর অবস্থা জানতে রোগীর মাকে ফোন করেছিলাম।

বাউফল হাসপাতালের স্বাস্থ্য ও পরিবাবর পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. প্রশান্ত কুমার সাহা বলেন, ঘটনাটি মৌখিকভাবে জেনেছি। এ ব্যাপারে লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়নি। তবে চিকিৎসকদের নিয়ে পরবর্তী করণীয় ঠিক করা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ

Best Electronics