.ঢাকা, শুক্রবার   ২২ মার্চ ২০১৯,   চৈত্র ৮ ১৪২৫,   ১৫ রজব ১৪৪০

জামালপুরে প্রধানমন্ত্রীর জন্য শোভাযাত্রা

জামালপুর প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ২০:০০ ৮ নভেম্বর ২০১৮   আপডেট: ২০:০০ ৮ নভেম্বর ২০১৮

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জামালপুরের সরকারি দুই কলেজের অবকাঠামো উন্নয়নে ২২৯ কোটি টাকার প্রকল্প অনুমোদন পাওয়ায় আনন্দ শোভাযাত্রা ও মিষ্টি বিতরণ হয়েছে।

বৃহস্পতিবার কলেজ ক্যাম্পাস থেকে দয়াময়ী চত্বর পর্যন্ত শোভাযাত্রাটি করে কলেজের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা।

আশেক মাহমুদ কলেজ ও জামালপুর সরকারি জাহেদা সফির মহিলা কলেজের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজমকে শুভেচ্ছা জানিয়ে এ শোভাযাত্রার আয়োজন করে।

পরে সমাবেশে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আরো সাফল্য এবং উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে তার দীর্ঘায়ূ কামনা করে। সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজের অবকাঠামোগুলো হলো- একটি ৬তলা একাডেমিক ভবন, ৫শ’ আসন বিশিষ্ট ৫তলা একটি ছাত্রাবাস ও একটি ছাত্রীনিবাস, ৫তলা বিশিষ্ট শিক্ষক ডরমেটরি একটি, ৪তলা বিশিষ্ট টিএসসি ভবন একটি, একটি ক্যান্টিন, পিডিবির বিদ্যুৎ উপকেন্দ্র একটি, খেলার মাঠ ও দু’টি প্রবেশ তোরণসহ অন্যান্য অবকাঠামো নির্মাণ।

সরকারি জাহেদা সফির মহিলা কলেজ ক্যাম্পাস থেকে অধ্যক্ষ প্রফেসর স্বদেশ চন্দ্র সাহার নেতৃত্বে আনন্দ শোভাযাত্রা বের হয়। শোভাযাত্রায় জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক আহাম্মেদ চৌধুরী, কলেজ প্রতিষ্ঠাতা পরিবারের সদস্য সহিদুর রহমান বাদল, উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মো. শহীদুল্লাহ, শিক্ষক সংসদের সম্পাদক প্রফেসর আ ন ম মোফাখখারুল ইসলাম, সহযোগী অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সৈয়দ আতিকুর রহমান ছানা, সাংগঠনিক সম্পাদক ছানোয়ার হোসেন ছানু, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ফারহান আহমেদ, পৌর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান টিটু, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মাকসুদ বিন জালাল প্লাবন ও বিএনসিসি প্লাটুন কমান্ডার ফজলুল হক মনিসহ কলেজের সকল শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা অংশ নেন। পরে কলেজ ক্যাম্পাসে মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

সমাবেশে সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মুজাহিদ বিল্লাহ ফারুকী বলেন, ‘প্রত্যাশিত এ প্রকল্পটি অনুমোদন পাওয়ায় কলেজের আধুনিক সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধির নতুন দ্বার উম্মোচিত হলো। দেশের সার্বিক উন্নয়নের পাশাপাশি শিক্ষাক্ষেত্রে শিক্ষাবান্ধব বর্তমান সরকারের ভূমিকা দেশকে আরো এগিয়ে নিয়ে যাবে।‘

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফারুক আহাম্মেদ চৌধুরী, কলেজের উপাধ্যক্ষ প্রফেসর মো. হারুন অর রশীদ, শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সহযোগী অধ্যাপক মনোয়ার হোসেন মুরাদ, বিসিএস কলেজ ইউনিট সম্পাদক স্বরুপ কুমার কাহালী, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এড. আমান উল্লাহ আকাশ, জামালপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি আজিজুর রহমান ডল ও ঝাউগড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনজুমান আরা হেনা।

একই সময় কলেজ ক্যাম্পাস থেকে আনন্দ শোভাযাত্রা বের করে সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজ শাখা ছাত্রলীগ। পরে এক সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ছানোয়ার হোসেন ছানু, জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ফারহান আহম্মেদ, জেলা  স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক নাজমুল আহসান জনি, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নিহাদুল আলম নিহাদ, সাধারণ সম্পাদক মাকসুদ বিন জালাল প্লাবন ও সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজ ছাত্রলীগের আহবায়ক খাবীরুল ইসলাম খান।

এছাড়াও কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মুজাহিদ বিল্লাহ ফারুকী ফেইসবুকে শিক্ষাবান্ধব সরকারের প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী, বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম, প্রধানমন্ত্রীর এসডিজি বিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক, শিক্ষা সচিবসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজের সার্বিক উন্নয়নে শতকোটি টাকার উন্নয়ন প্রকল্প একনেকে পাস হলো।

মেলান্দহ উপজেলার ঝাউগড়া ইউনিয়ন পরিষদের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আঞ্জুমনোয়ারা বেগম হেনা শপথবাক্য পাঠ করেছেন। বৃহস্পতিবার ডিসি আহমেদ কবীর তার কার্যালয়ে এ শপথবাক্য পাঠ করান। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত ডিসি (সার্বিক) মোহাম্মদ কবীর উদ্দিন, জেলা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক আলহাজ আসাদুজ্জামান আকন্দ বাবু, জামালপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি আওয়ামী লীগ নেতা আজিজুর রহমান ডল, ঝাউগড়া ইউপি সচিব তাসলিমা জাহান নিপা, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ নেত্রী শেফালী বেগমসহ যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএস/আরআর