.ঢাকা, শুক্রবার   ২২ মার্চ ২০১৯,   চৈত্র ৭ ১৪২৫,   ১৫ রজব ১৪৪০

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে হুয়াওয়ের কর্মকর্তা বরখাস্ত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

 প্রকাশিত: ১৪:১৯ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৪:১৯ ১৪ জানুয়ারি ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে পোল্যান্ডে গ্রেফতার হওয়া কর্মকর্তাকে বরখাস্ত করেছে চীনের প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে।

এ সম্পর্কে গেল শনিবার এক বিবৃতিতে হুয়াওয়ে জানায়, প্রতিষ্ঠানের সুনাম নষ্ট করায় ওয়াং ওয়েইজিং নামক কর্মকর্তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে। তিনি যা করেছেন তা সম্পূর্ণই নিজে থেকে করেছেন এবং এর ফলে প্রতিষ্ঠানের সুনাম ক্ষুন্ন হয়েছে।

এর আগে শুক্রবার পোল্যান্ডের গোয়েন্দা সংস্থা জানিয়েছিল, গুপ্তচরবৃত্তির দায়ে চীনের এক নাগরিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরবর্তীতে দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানায় গ্রেফতারকৃত সন্দেহভাজন ব্যক্তি হুয়াওয়ের একজন কর্মকর্তা।

গুপ্তচরবৃত্তির ঘটনায় হুয়াওয়ের কর্মকর্তা ছাড়াও পোল্যান্ডের গোয়েন্দা বাহিনীর এক সাবেক সদস্যকেও গ্রেফতার করা হয়েছে বলে এক বিবৃতিতে দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা জানিয়েছে। 

মঙ্গলবার ওই সন্দেহভাজনদের বাড়ি তল্লাশি করা হয়। আদালত তাদেরকে তিন মাসের আটকাদেশ দিয়েছে। দোষী প্রমাণিত হলে এদের ১০ বছর কারাদণ্ড দেয়া হতে পারে।

হুয়াওয়েকে জাতীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি বলে মনে করে যুক্তরাষ্ট্র। এছাড়াও কয়েকটি দেশ হুয়াওয়ের যন্ত্রপাতির ব্যবহার নিয়ে উদ্বিগ্ন। এগুলো চীন গুপ্তচরবৃত্তিতে ব্যবহার করছে বলে সন্দেহ করছেন অনেকেই। অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড তাদের দেশে ফাইভ-জি নেটওয়ার্কে হুয়াওয়ের তৈরি যন্ত্র ব্যবহার বন্ধ করেছে।

তবে চীনা সরকার ও হুয়াওয়ে কর্তৃপক্ষ উভয়েই এ সকল অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

গেল বছরের ডিসেম্বরে হুয়াওয়ের প্রধান অর্থ কর্মকর্তা মেং ওয়াংঝু কানাডায় গ্রেফতার হওয়ার পর প্রতিষ্ঠানটি নিয়ে বিতর্ক আরও বৃদ্ধি পায়। এর ফলে বাণিজ্য যুদ্ধে লিপ্ত চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে সম্পর্কেও নতুন করে উত্তেজনা তৈরি হয়।

হুয়াওয়ে বিশ্বের সর্ববৃহৎ প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি। এটি অ্যাপলের চেয়েও বেশি স্মার্টফোন বিক্রি করে। একই সঙ্গে সারা বিশ্বে উন্নত টেলিকমিউনিকেশন নেটওয়ার্কে ব্যবহৃত বিভিন্ন যন্ত্র তৈরি করে তারা।

ডেইলি বাংলাদেশ/মাহাদী/এসআইএস