Alexa খাঁচার মাছে বাড়তি আয়

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৬ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ১ ১৪২৬,   ১২ জ্বিলকদ ১৪৪০

খাঁচার মাছে বাড়তি আয়

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ০৪:১৮ ১০ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ০৪:১৮ ১০ জানুয়ারি ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে টাঙ্গন নদীর উম্মুক্ত জলাশয়ে খাঁচায় মাছ চাষ করে বাড়তি আয় করছেন মাছ চাষীরা। ৩০টি খাচায় তেলাপিয়া মাছ চাষ করে এক বছরে ৭ লাখ টাকা আয় হয়েছে।

ইউপি পর্যায়ে মৎস্য চাষ প্রযুক্তি সেবা সম্প্রসারণ প্রকল্পের আওতায় উপজেলার রানীরঘাট রাবার ড্যামের উজানে সিরাইলে টাঙ্গন নদীর উম্মুক্ত জলাশয়ে ২০১৭ সালে ১টি ইউনিটে ১০টি খাঁচা স্থাপন করা হয়। ২০ জন মাছ চাষী নিয়ে গঠিত মৎস্যজীবী সমিতির তত্বাবধানে শুরু হয় খাঁচায় তেলাপিয়া মাছ চাষ। ২০১৮ সালে সেখান থেকে আয় হয় ৫ লাখ টাকা।

সাফল্য পেয়ে সাগুনী রাবার ড্যামের উজানে ২০টি খাঁচা স্থাপন করা হয়। ২৪ জন মৎস্যজীবী নিয়ে গঠিত আরেকটি সমিতির তত্বাবধানে সেখানেও চলছে মাছ চাষ। এরইমধ্যে সেখানকার মাছ বাজারজাত করা শুরু হয়েছে।

সাগুনী মৎস্য সমিতির সদস্য সন্তোষ বলেন, এরইমধ্যে ২০ হাজার টাকার মাছ বিক্রি করা হয়েছে। খাঁচায় যে পরিমান মাছ রয়েছে তা বিক্রি করে লাভ হবে প্রায় ২ লাখ টাকা। আগামীতে লাভ আরো বাড়বে।

সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা ইসমত আরা বলেন, একটি খাঁচায় ৬০০-১০০০ টি মাছ চাষ করা যায়। প্রতি ৩ মাস পর পর মাছ বিক্রি করা যায়। একটি খাঁচা থেকে সব খরচ বাদ দিয়ে কমপক্ষে ৫০ হাজার টাকা আয় হয়। ৩০টি খাঁচায় আগামী বছর মাছ চাষ করে ১৫ লাখ টাকা আয় করা সম্ভব।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর