Alexa বিভক্ত হয়ে পড়ছে পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা!

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৩ জুলাই ২০১৯,   শ্রাবণ ৯ ১৪২৬,   ২০ জ্বিলকদ ১৪৪০

বিভক্ত হয়ে পড়ছে পাকিস্তানি ক্রিকেটাররা!

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৮:৩৬ ১৯ জুন ২০১৯   আপডেট: ১৪:৩০ ১৯ জুন ২০১৯

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

বিশ্বকাপে পাঁচ ম্যাচের মধ্যে এখন পর্যন্ত মাত্র একটিতে জয়ের দেখা পেয়েছে সরফরাজের দল পাকিস্তান। পয়েন্ট তালিকায় ১০ দলের মধ্যে তাদের অবস্থান নবম।

১৯৯২ বিশ্বকাপজয়ী পাকিস্তানের সর্বশেষ ম্যাচে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের কাছে হারায়। হারের পর থেকে পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের রীতিমতো ধুয়ে দিচ্ছেন দেশটির ভক্ত-সমর্থকরা।
 
পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যমের দাবি, দলের ড্রেসিংরুমে এরই মধ্যে ভাঙন দেখা দিয়েছে। কয়েকটি গ্রুপে বিভক্ত হয়ে পড়েছেন ক্রিকেটাররা। ড্রেসিংরুমে এই কোন্দল ও গ্রুপিংয়ের কারণেই নাকি ভারতের বিপক্ষে ম্যাচে হারের মুখ দেখেছে সরফরাজের দল।

ভারতের বিপক্ষে ৩০ বলে ১২ রান করে আউট হওয়ার পর ড্রেসিংরুমে গিয়ে সতীর্থের ওপর ক্ষোভ ঝারেন অধিনায়ক সরফরাজ। এ সময় ইমাম উল হক ও ইমাদ ওয়াসিমের বিরুদ্ধে দলাদলি, অসহযোগিতা ও তার বিরদ্ধে ষড়যন্ত্র করার অভিযোগ আনেন সরফরাজ।

দুনিয়া নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়, পাকিস্তানের ড্রেসিংরুমে এই মুহূর্তে দুটি গ্রুপ রয়েছে। একটি গ্রুপকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন মোহাম্মদ আমির। বাকি গ্রুপের নেতৃত্বে রয়েছেন ইমাদ ওয়াসিম।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে হারের পর সরফরাজের ওপর ক্ষুব্ধ হন শোয়েব মালিক, ইমাদ ওয়াসিম, ইমাম উল হক ও বাবর আজমসহ বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার। সেই থেকেই দলে গ্রুপিংয়ের সৃষ্টি। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে মাঠেই ক্ষুব্ধ আচরণ করতে দেখা যায় মোহাম্মদ আমিরকে।

ভারতের বিপক্ষে আউট হওয়ার পর ড্রেসিংরুমে গিয়ে সরফরাজের ক্ষোভ প্রকাশের বিষয়টি অকপটেই স্বীকার করেছেন তারা।

এক ক্রিকেটার বলেন, সরফরাজ কাউকে দোষারোপ করেনি। গ্রুপিং নিয়েও তিনি কোনো কথা বলেনি। তিনি শুধু নিজের হতাশা প্রকাশ করেছেন এবং সবাইকে নিজের সেরাটা দেওয়ার অনুরোধ করেছেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে