Alexa ক্যারিয়ার আছে ভেটেরিনারি পড়াশোনায়

ঢাকা, শনিবার   ১৯ অক্টোবর ২০১৯,   কার্তিক ৪ ১৪২৬,   ২০ সফর ১৪৪১

Akash

ক্যারিয়ার আছে ভেটেরিনারি পড়াশোনায়

আবু হানিফ, শেকৃবি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:০৭ ৯ অক্টোবর ২০১৯   আপডেট: ১৬:৩৫ ৯ অক্টোবর ২০১৯

ডেইলি বাংলাদেশ

ডেইলি বাংলাদেশ

প্রাণীদের চিকিৎসা সেবায় ভেটেরিনারি ও মেডিসিন অনুষদে পড়ানো হয় । শিক্ষার্থীদের দেয়া হয় ডিভিএম বা বিএসসি ভেট সায়েন্স অ্যান্ড এএইচ ডিগ্রি। আরো বিস্তারিত জানাচ্ছেন শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যানিমেল সায়েন্স অ্যান্ড ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদের প্যাথলজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. সাজেদা সুলতানা।
  
কেন পড়বেন

প্রাণী চিকিৎসকরাই ভেটেরিনারিয়ান। দেশে তাদের চাহিদাও বাড়ছে। পড়াশোনা শেষে আছে কাজের সুযোগ। এনথ্রাক্স, বার্ড ফ্লু প্রভৃতির মতো ভয়াবহ জোনোটিক রোগের প্রাদুর্ভাবের ফলে ভেটদের চাহিদা এখন প্রচুর। ফলে ভেটেরিনারিয়ান হিসেবে ক্যারিয়ার আছে। শুরুর অল্প দিনের মধ্যেই নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করা সম্ভব।

কোথায় পড়ানো হয়

দেশে এ বিষয়ে একমাত্র বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও অ্যানিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, সরকারি ঝিনাইদহ ভেটেরিনারি কলেজ। গণবিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ার সুযোগ রয়েছে।       

কী পড়ানো হয়

শিক্ষার্থীদের পড়ানো হয় ফুড অ্যানিমেল, ল্যাব অ্যানিমেল, জু অ্যানিমেল, পোল্ট্রি এবং বন্য প্রাণীর অ্যানাটমি, ফিজিওলজি, হিস্টোলজি, বায়োকেমিস্ট্রি, মাইক্রোবায়োলজি, ভাইরোলজি, ব্যাক্টেরিওলজি, প্যাথলজি ও প্যারাসাইটোলজি, ফুড হাইজিন থেকে শুরু করে প্রাণী পালন, ডেইরি ব্যবস্থাপনা, অ্যানিমেল নিউট্রিশনসহ মেডিসিন প্রভৃতি। অসুস্থ হলে চিকিৎসার জন্য মেডিসিন, অস্ত্রোপচারের সাহায্যে সুস্থ করার জন্য সার্জারি, মানুষকে সঠিক মানসম্মত খাদ্য পর্যবেক্ষণের জন্য ফুড হাইজিন, জনস্বাস্থ্য রক্ষায় পাবলিক হেলথসহ অসংখ্য বাস্তবিক ও গবেষণালব্ধ জ্ঞানের চর্চা করানো হয়।

ডিগ্রী ও শিক্ষা পদ্ধতি  

৫ বছর মেয়াদি কোর্স। যেখানে শেষ ১ বছর/ ৬ মাস ইন্টার্নিশিপ করানো হয়। ভেটেরিনারিয়ান হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করতে হলে ডিভিএম/ সমমান কোর্স শেষ করতে হবে। সেমিস্টার পদ্ধতিতেই পড়ানো হয় এই কোর্স। ইন্টার্নশিপে সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের প্রতি মাসে ১৫০০০ টাকা করে ভাতা দেয়া হয়।   

উচ্চতর শিক্ষার সুযোগ

পাস করার পর একজন ভেটেরিনারিয়ান বাংলাদেশেই উচ্চতর শিক্ষা অর্জন করতে পারেন। দেশের যে কোনো উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মাইক্রোবায়োলজি, বায়োকেমিস্ট্রি, ফার্মেসি, পাবলিক হেলথসহ সব সাবজেক্টে এমএস ও পিএইচডি করার সুযোগ রয়েছে।

সেই সঙ্গে উন্নত বিশ্বের যে কোনো দেশে প্রশিক্ষণের উদ্দেশে বিভিন্ন বৃত্তিমূলক শিক্ষা কার্যক্রমে অংশগ্রহণের ক্ষেত্রে অন্য পেশা হতে প্রাধান্য পেয়ে থাকে। পেশা হিসেবে ভেটেরিনারি মেডিসিন অন্য পেশার তুলনায় কোনো অংশেই কম নয়।

চাকরির সুযোগ

বিসিএস-এ ভেটেরিনারি শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে বিশেষ টেকনিক্যাল ক্যাডার। বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান যেমন: ICDDRB, BLRI, LRI, FRI- এগুলোতে বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা হিসেবে কাজ করার সুযোগ রয়েছে।  আন্তর্জাতিক সংস্থা যেমন- FAO, WHO, UNICEF, UNESCO, UN, DFID এখানেও উচ্চ বেতনে চাকরি এবং বিভিন্ন দেশ ভ্রমণের সুযোগ রয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম