কালিয়ায় দশ টাকার চাল কালোবাজারে!

.ঢাকা, শুক্রবার   ২৬ এপ্রিল ২০১৯,   বৈশাখ ১৩ ১৪২৬,   ২০ শা'বান ১৪৪০

কালিয়ায় দশ টাকার চাল কালোবাজারে!

 প্রকাশিত: ২০:১১ ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮   আপডেট: ২০:১১ ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

নড়াইলের কালিয়ায় দশ টাকা কেজি দরে বিক্রিকৃত চাল কালোবাজারে বিক্রির অভিযোগে এক ডিলারকে আটক করা হয়েছে।

বুধবার দুপুরে উপজেলার পেড়লী বাজারের চাল বিতরণকালে ইউএনওর পুলিশ ওই ডিলারকে আটক করে। আটকের নাম লায়েক শেখ। এই ঘটনায় কালিয়া থানায় মামলা হয়েছে।

জানা গেছে, কালিয়া উপজেলার পেড়লী ইউনিয়নের ৯৫০জন হতদরিদ্রকে সরকারিভাবে দশ টাকা কেজি দরে চাল বিতরণের জন্য দু’জন ডিলার নিয়োগ দেয়া হয়। এর মধ্যে ৪৮৫ হতদরিদ্রের মাঝে চাল বিতরণের জন্য পেড়লী বাজারে লায়েক শেখ এবং খড়রিয়া বাজারে ৪৬৫ জন হতদরিদ্রের জন্য মফিজুর রহমানকে ডিলার নিয়োগ দেন খাদ্য অধিদফতর।

এ মাস থেকে চালু হওয়া ১০টাকা কেজি দরে চাল দেয়ার জন্য সরকারি নির্দেশনায় ৩০ কেজি করে বস্তাজাত করে ডিলারদের দেয়া  হয়। কিন্তু পেড়লী ইউপি’র ওই দুই ডিলারের বিরুদ্ধে বস্তা কেটে চাল বের করে কালোবাজারে বিক্রি ও কার্ডধারীদের ৩০০ টাকায় ৩০কেজির স্থলে ২৫ কেজি করে চাল দেয়ার অভিযোগ ওঠে।

অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে বুধবার দুপুরে চাল বিতরণকালে কালিয়ার ইউএনও পেড়লী বাজারের ডিলার লায়েক শেখের দোকানে অভিযান চালিয়ে ঘটনার সত্যতা পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ডিলার লায়েক শেখকে আটকের জন্য পুলিশকে নির্দেশ দেন।

এ ব্যাপারে কালিয়ার ইউএনও মো. নাজমুল হুদা বলেন,‘সরকার নির্ধারিত চাউলের বস্তা কেটে চাল কালোবাজারে বিক্রি করায় পেড়লী ইউপি’র ডিলার লায়েক শেখকে আটক করা হয়েছে। আটককৃত ডিলারের বিরুদ্ধে তদারকি কর্মকর্তা উপজেলা সহকারি প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শেখর কুমার মিত্র বাদী হয়ে কালিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে। ওই ডিলারের ডিলারশীপ বাতিল করা হয়েছে’।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরআর