কলমাকান্দায় যৌন নিপীড়নের শাস্তি ১০টি বেত্রাঘাত 
SELECT bn_content.*, bn_bas_category.*, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeInserted, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeInserted, DATE_FORMAT(bn_content.DateTimeUpdated, '%H:%i %e %M %Y') AS fDateTimeUpdated, bn_totalhit.TotalHit FROM bn_content INNER JOIN bn_bas_category ON bn_bas_category.CategoryID=bn_content.CategoryID INNER JOIN bn_totalhit ON bn_totalhit.ContentID=bn_content.ContentID WHERE bn_content.Deletable=1 AND bn_content.ShowContent=1 AND bn_content.ContentID=112715 LIMIT 1

ঢাকা, রোববার   ০৯ আগস্ট ২০২০,   শ্রাবণ ২৫ ১৪২৭,   ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

Beximco LPG Gas

কলমাকান্দায় যৌন নিপীড়নের শাস্তি ১০টি বেত্রাঘাত 

কলমাকান্দা (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৪:১৭ ১৮ জুন ২০১৯   আপডেট: ০৪:৩৩ ১৮ জুন ২০১৯

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

নেত্রকোনা জেলার কলমাকান্দা উপজেলার কৈলাটী ইউপির বাহাম গ্রামের মো. নাসির মীরের ছেলে মো. আরিফ মীরের বিরুদ্ধে এক শিশুকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ উঠেছে। 

উপজেলার বাহাম গ্রামের এক মেয়ে ঢাকায় গৃহকর্মীর কাজ করে। মোবাইলে তার সঙ্গে একই গ্রামের মো. নাসির মীরের ছেলে মো. আরিফ মীরের পরিচয় সূত্রে ও প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। রমজানের ঈদের আগে মেয়েটি বাড়িতে বেড়াতে আসে। 

গত বুধবার সন্ধ্যায় আরিফ মীর মেয়েটিকে তার সঙ্গে দেখা করতে বলে। মেয়েটি দেখা করতে গেলে আরিফ পাশের সনুরা গ্রামে নিয়ে তার ওপর যৌন নিপীড়ন চালায়। অনেকক্ষণ বাড়ি না ফেরায় পরিবার ও গ্রামের লোকজন অনেক খোঁজাখুঁজি করে পরে সনুরা গ্রাম থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে গ্রামের কয়েক মাতাব্বর টাকার বিনিময়ে  ধামাচাপার দেয়ার চেষ্টা চালায়। 

এ নিয়ে গত রোববার গ্রামে সালিশ বসে। স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার হাফিজ উদ্দিনের সভাপতিত্বে সালিশে ছেলেকে দোষী সাব্যস্ত করে বেত্রাঘাত করা হয়। অন্যদিকে মেয়ের পরিবার এতে সন্তুষ্ট নয়, বিয়ে করার জন্য ছেলে পক্ষকে বলে। এতে ছেলে পক্ষ অস্বীকৃতি জানায়। 

কৈলাটী ইউপি চেয়ারম্যান মো. রুবেল ভুইয়া বলেন, ইউপির বাহাম গ্রামে শিশু যৌন নিপীড়নের ঘটনা ঘটেছে। এ ধরনের ঘটনা সালিশ অযোগ্য অপরাধ। তারপরও নাকি এ নিয়ে গত রোববার গ্রাম্য সালিশে মীমাংসার চেষ্টা করছে ওই এলাকার মেম্বারসহ কিছু লোক।

ওই ওয়াডের্র মেম্বার হাফিজ উদ্দিনের কাছে মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মোবাইলে মেয়েকে উত্যক্ত করার কথা শুনে আমরা এলাকার বেশ কিছু লোক ওই ওয়াডের্র মহিলা মেম্বার নাজমা বেগমের বাড়িতে সালিশে বসেছিলাম। স্থানীয় সবার উপস্থিতিতে মেয়েটিকে উত্যক্ত করার শাস্তি হিসেবে ছেলেকে ১০টি বেত্রাঘাত করে বিচার শেষ হয়েছে। ওই সালিশে এলাকার ওই ওয়াডের্র সাবেক মেম্বার,শিক্ষকসহ বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে কলমাকান্দা থানার ওসি মো. মাজহারুল করিম জানান, শিশু নির্যাতনের ব্যাপারে কোনো  ধরনের সংবাদ এখনো পাওয়া যায়নি।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ