করোনায় দরিদ্রদের দুই দিনের বেতন দিচ্ছে ঢাবি শিক্ষক সমিতি

ঢাকা, শুক্রবার   ২৯ মে ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭,   ০৬ শাওয়াল ১৪৪১

Beximco LPG Gas

করোনায় দরিদ্রদের দুই দিনের বেতন দিচ্ছে ঢাবি শিক্ষক সমিতি

ঢাবি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১১:৩৭ ২ এপ্রিল ২০২০  

শ্রমজীবী মানুষদের পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি।

শ্রমজীবী মানুষদের পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি।

করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯ প্যানডেমিক) এমন দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে গরিব ও অসহায় শ্রমজীবী মানুষদের পাশে দাঁড়ানোর উদ্যোগ নিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি। সেই লক্ষ্যে নিজেদের দুই দিনের বেতনের সমপরিমাণ টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে প্রদান করার ঘোষণা দিয়েছে শিক্ষক সমিতি।

বুধবারে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এএসএম মাকসুদ কামাল ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. নিজামুল হক ভূঁইয়া স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ক্রাণ তহবিলে এই অর্থ প্রদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণের লক্ষ্যে শিক্ষক সমিতির কার্যকর পরিষদের সদস্যদের ছাড়াও প্রায় শতাধিক শিক্ষকের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেছেন সমিতির নেতারা। বৈশ্বিক বিপর্যয়কালে এই মানবিক সহযােগিতার মাধ্যমে আমরা সংবেদনশীলতার সঙ্গে এ কথাই প্রকাশ করতে চাই, বাংলাদেশের সাধারণ মানুষের সঙ্গে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমাজ আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে।

এই উদ্যোগের লক্ষ্য সম্পর্কে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, করোনা ভাইরাস বিশ্বজুড়ে মহামারি রূপ নিয়েছে। এরইমধ্যে প্রায় ২০০টি দেশের জনগণ আক্রান্ত। বাংলাদেশ এর বাইরে নেই। এই প্রেক্ষাপটে স্বাস্থ্য সংক্রান্ত সতর্কতার অংশ হিসেবে সব ধরনের জনসমাগম, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, অফিস-আদালত বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। ফলে বর্তমানে দৈনিক খেটে খাওয়া হতদরিদ্র শ্রেণি-পেশার মানুষের ওপর এর প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। এই পরিস্থিতিতে মানবিকতার অংশ হিসেবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির কার্যকরী পরিষদ এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে।

সবাই নিজ ইচ্ছায় এই টাকা দিতে বা না দিতে পারবেন কাউকে বাধ্য করা হবে না জানিয়ে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অনিবার্যকারণে যদি কেউ এ অর্থ প্রদানে অপারগ অথবা অনিচ্ছুক হোন তাহলে হিসাবপরিচালক (মােবাইল নম্বর: ০১৭১৫ ৭০০৫৪০) বরাবরে ৫ এপ্রিল রােববারের মধ্যে লিখিতভাবে জানিয়ে অর্থপ্রদান থেকে বিরত থাকতে পারবেন। অন্যদিকে কেউ যদি দুই দিনের বেতনের বেশি অর্থ প্রদান করতে চান, তাহলে হিসাবপরিচালককে জানিয়ে তাও করতে পারবেন।

'কেন' প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে অর্থপ্রদান করা হচ্ছে এটা জানিয়ে বলেন, ‘চারদিকে যখন সবাই ঘরে বসে দিন কাটাচ্ছি, এ সময় এই মানবিক সহায়তার সঠিক প্রয়ােগ ও যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিত করতে হলে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণতহবিলে তা প্রদান করাই যুক্তিযুক্ত হবে বলে আমরা মনে করি। এ অর্থ আগামী ৪ মাসে প্রদেয় বেতন থেকে সমান কিস্তিতে কর্তন করা হবে।

বিজ্ঞপ্তিতে সমিতির সাধারণ সভা বিষয়ে বলা হয়, ‘বর্তমান পরিস্থিতিতে শিক্ষক সমিতির সাধারণ সভা আহ্বান করা যাচ্ছে না, পরবর্তীকালে যথােপযুক্ত সময় এলে সাধারণ সভা আহ্বান করে উপযুক্ত বিষয়টি আমরা আপনাদের অবহিত করবাে।’

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম