‘করোনাভাইরাস পরীক্ষায় কিটসের অভাব হবে না’

ঢাকা, শুক্রবার   ২৯ মে ২০২০,   জ্যৈষ্ঠ ১৫ ১৪২৭,   ০৫ শাওয়াল ১৪৪১

Beximco LPG Gas

‘করোনাভাইরাস পরীক্ষায় কিটসের অভাব হবে না’

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৩৯ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০   আপডেট: ১৭:৫১ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, আমরা কিছুদিন আগে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় বন্ধুপ্রীতম রাষ্ট্র চীনের  পাশে দাঁড়ানোর জন্য কিছু মেডিকেল জিনিসপত্র দিয়েছি। তার ধারাবাহিকতায় চীন সরকার বাংলাদেশকে শুভেচ্ছা স্বরুপ ৫০০টি টেস্টিং কিটস দিয়েছে। যা আজ হস্তান্তর করল বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত।

এছাড়া বাংলাদেশেও দুই হাজার কিটস রয়েছে। সব মিলিয়ে আড়াই হাজার কিটস হলো। কিটসের কোন অভাব হবে না। আরো পাইপলাইনে আছে।

মঙ্গলবার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে করোনাভাইরাসের কিটস হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। 

মন্ত্রী বলেন, আমরা করোনাভাইরাস ঠেকানোর প্রস্তুতি নিয়েছি। এছাড়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের জন্য ঢাকা কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালকে প্রস্তুত রাখা হয়েছে। যদি দেশে এ ধরনের রোগী পাওয়া যায় তাহলে সেখানে সার্বক্ষণিক চিকিৎসা দেয়া হবে। 

এ ভাইরাস নিয়ে সারাবিশ্ব আতঙ্কে রয়েছে উল্লেখ করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, এ পর্যন্ত ২৩টি দেশে করোনাভাইরাস পাওয়া গেছে। প্রায় ৮০ হাজার রোগী রয়েছে। আর মৃত্যুবরণ করেছে চীনসহ অন্যান্য দেশের দুই হাজার ৬১৮ জন।

তিনি বলেন, আমাদের দেশে এ পর্যন্ত ৩ লাখের মতো লোককে পরীক্ষা করেছি। যারা বিভিন্ন নৌবন্দর, স্থলবন্দর দিয়ে দেশে প্রবেশ করেছে তাদের সবাইকে পরীক্ষা করা হয়েছে। দেশের জন্য সুখবর হলো এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত কোনো রোগী পাওয়া যায়নি। তবুও আমরা সব ব্যবস্থা নিয়ে রেখেছি। আমাদের পরীক্ষা ও চিকিৎসা দেয়ার সম্পূর্ণ ব্যবস্থা রয়েছে। 

চীনে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা কমে যাচ্ছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, আগে আড়াই হাজার ছিল এখন কমে ৪০০ এর নিচে নেমে এসেছে। তবে মৃত্যুর সংখ্যা এখনো বাড়ছে। আরেকটা দুঃসংবাদ হলো, মধ্যপ্রাচ্য ইরান, ইরাকসহ অন্যান্য দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এসএইচআর/এমআরকে/এসএএম