করোনাভাইরাস অ্যান্টিবায়োটিকে সারবে না, প্রয়োজন সচেতনতা

ঢাকা, রোববার   ২৯ মার্চ ২০২০,   চৈত্র ১৫ ১৪২৬,   ০৪ শা'বান ১৪৪১

Akash

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দেয়া সতর্ক বার্তা

করোনাভাইরাস অ্যান্টিবায়োটিকে সারবে না, প্রয়োজন সচেতনতা

স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১১:৩৩ ৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০   আপডেট: ১১:৩৭ ৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

করোনাভাইরাস সংক্রমণের ভয় এখন বিশ্ববাসীর মনে। এই ভাইরাসে চীনে মৃত্যুর মিছিল বেড়েই চলেছে। চিকিৎসকরাও রীতিমত হিমশিম খাচ্ছেন রোগীদের বাঁচাতে। 

চীনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশনের তথ্য অনুযায়ী, ভাইরাসটির কবলে পড়ে এ পর্যন্ত মোট ৬৩৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া নতুন করে তিন হাজার ১৪৩ জন আক্রান্ত হওয়ায় দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছেছে ৩১ হাজার ১৬১ জনে।

এদিকে, প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন নয় বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডাব্লিউএইচও)। তাই অ্যান্টিবায়োটিকে এই ভাইরাসটি নিরাময় সম্ভব হবেনা। তাই বিশ্ববাসীকে এই ভাইরাস সংক্রমণ থেকে নিরাপদ রাখতে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দিয়েছে সংস্থাটি-
 
১. কণ্ঠনালীকে আর্দ্র রাখতে হবে। কোনোক্রমেই গলা যেন শুষ্ক না থাকে সেদিকে খেয়াল রাখুন। 

২. পিপাসা পেলেই পানি পান করুন। কণ্ঠনালী শুষ্ক থাকলে মাত্র ১০ মিনিটের মধ্যেই ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হতে পারেন।

৩. ৫০ থেকে ৮০ সিসি হালকা গরম পানি পান করুন (বড়দের জন্য)। ৩০ থেকে ৫০ সিসি ছোটদের জন্য।

৪. সবসময় হাতের কাছে বিশুদ্ধ পানি রাখুন। বাইরে বের হলেও সঙ্গে পানি রাখতে ভুলবেন না যেন।

৫. একসঙ্গে বেশি পানি না পান করে বরং একটু পরপর অল্প পানি পান করে কণ্ঠনালী আর্দ্র রাখুন। 

করোনাভাইরাস যাতে আপনার শরীরে থাবা বসাতে না পারে তাই চলতি বছরের মার্চ মাসের শেষ পর্যন্ত এই নিয়মগুলো মেনে চলুন-

১.  জনবহুল স্থান থেকে দূরে থাকুন

২. ট্রেন, বাস এবং যে কোনো গণপরিবহনে মাস্ক ব্যবহার করুন।

৩. ভাজা পোড়া বা তৈলাক্ত খাবার এড়িয়ে চলুন। 

৪. প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি জাতীয় খাবার খেতে হবে। 

করোনাভাইরাসের লক্ষণসমূহ

১) ঘন ঘন উচ্চ তাপমাত্রায় জ্বর।

২) জ্বরের পর দীর্ঘ সময় ধরে কাশি।

৩) শিশুদেরও এমন লক্ষণ দেখা দেয়।

৪) বয়ষ্কদের শারীরিক অসুস্থতাবোধ করা, মাথা ব্যথা, বিশেষ করে শ্বাস-প্রশ্বাস জনিত রোগে ভোগা।

প্রাণঘাতী এই রোগ থেকে বাঁচতে সর্বোচ্চ সুরক্ষা প্রস্তুতি গ্রহণ করুন। নিজে সচেতন থেকে অন্যকেও সতর্ক করুন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস