একা হাতে ৬৮২ সেক্স চেঞ্জ সার্জারি! পুলিশের জালে নারী ডাক্তার

ঢাকা, শনিবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১,   ফাল্গুন ১৪ ১৪২৭,   ১৪ রজব ১৪৪২

একা হাতে ৬৮২ সেক্স চেঞ্জ সার্জারি! পুলিশের জালে নারী ডাক্তার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :: international-desk

 প্রকাশিত: ১৮:৪২ ২০ ডিসেম্বর ২০১৮   আপডেট: ১৮:৪২ ২০ ডিসেম্বর ২০১৮

লিঙ্গ-পরিবর্তন অস্ত্রোপচার

লিঙ্গ-পরিবর্তন অস্ত্রোপচার

সময়ের নিরিখে মাত্র ৩ বছর। কিন্তু এর মধ্যেই ভারতের বেঙ্গালুরুর এই চিকিত্‍সক করে ফেলেছেন ৬৮২টি লিঙ্গ পরিবর্তন অস্ত্রোপচার। 

মান্ড্য পুলিশের তদন্তে সম্প্রতি উঠে এসেছে একটি চক্রের নাম যার সঙ্গে যুক্তি ছিলেন ওই মহিলা চিকিত্‍সক। তবে জেরার সময়ে আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে এখনো গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। চিকিত্‍সকের অন্যান্য সহযোগীদের খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ। তার মধ্যে একজন রূপান্তরকামীও আছেন যিনি কম বয়সী ছেলেদের অস্ত্রোপচারের জন্যে নিয়ে আসত। 

মান্ড্যর পুলিশ সুপার শিব প্রকাশ দেবরাজু জানিয়েছেন, প্রাথমিক জেরায় ডাক্তারের থেকে জানা গিয়েছে এখনো পর্যন্ত তিনি ৬৮২টি অস্ত্রোপচার করেছেন। প্রতিটি অস্ত্রোপচারের জন্যে তিনি ১ লাখ ২৫ হাজার টাকা নিতেন। 

পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে ফেব্রুয়ারি মাসে এক বয়স্ক মহিলা নালিশ জানান যে, তার ১৬ বছরের নাতিকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। অক্টোবর মাসে স্থানীয় বাসিন্দারা ওই কিশোরকে মেয়েদের পোশাকে কেআর পেট সার্কেলে ঘুরতে দেখেন। তত্‍ক্ষণাত্‍ তারা পুলিশ ও পরিবারকে জানান। 

তদন্তে জানা গিয়েছে একদল রূপান্তরকামী তাকে আর্থিক সাহায্য করার লোভ দেখিয়ে জোর করে লিঙ্গ পরিবর্তন করায়। তৈরি করা হয় জাল জন্ম সংশাপত্র। এবং বেঙ্গালুরুর ওই চিকিত্‍সকই অস্ত্রোপচার করেন। এই ঘটনায় এখনো পর্যন্ত ধরা পড়েছে ৮ জন। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এসআই