Alexa ইন্ডিয়ান পার্সপোট করে না দেয়ায় দম্পতিকে মারপিট

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১২ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ২৭ ১৪২৬,   ১৪ রবিউস সানি ১৪৪১

ইন্ডিয়ান পার্সপোট করে না দেয়ায় দম্পতিকে মারপিট

ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি

 প্রকাশিত: ১৫:১৫ ২৯ জানুয়ারি ২০১৯   আপডেট: ১৬:১৩ ২৯ জানুয়ারি ২০১৯

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে ইন্ডিয়ান পাসপোর্ট করে না দেয়ায় এক দম্পতিকে বেধড়ক মারপিট করা হয়েছে। সোমবার বিকেলে উপজেলার গজারিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন আব্দুল মাকসুদ ওরফে মাসুদ ও তার স্ত্রী শাহিনা বেগম। পরে স্বজনরা আহতবস্থায় তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। আব্দুল মাকসুদ ওরফে মাসুদ জন্মসূত্রে বাংলাদেশি হলেও বর্তমানে তিনি এবং তার স্ত্রী ভারতীয় নাগরিক।

ভারতের হায়াদ্রাবাদে বসবাসকারী আব্দুল মাকসুদ ওরফে মাসুদের গ্রামের বাড়ি কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলার গজারিয়া গ্রামে। তার বাবার নাম জজ মিয়া। প্রায় বিশ বছর ধরে তিনি ভারতে বসবাস করছেন। দীর্ঘদিন আইনি লড়াই শেষে গত দশ বছর আগে আব্দুল মাকসুদ ভারতীয় নাগরিকত্ব পান। এ সুবাদে হায়াদ্রাবাদ শহরের স্থায়ী বাসিন্দা শাহিনা বেগমকে বিয়ে করে বসবাস করছেন তারা।

আহত আব্দুল মাকসুদ বলেন, গজারিয়ার দর্জি বাড়ির আমির হোসেনের ছেলে স্বপন ভারতে তার কাছে আশ্রয় চান। মানবিক কারণে স্বপনকে আশ্রয় ও রোজগারের জন্য নিজের সিএনজি গাড়ি দেন। থাকা, খাবার ও গাড়ি ভাড়া বাবদ সে প্রতি মাসে ১৫ হাজার টাকা দেবেন বলে চুক্তি হয়। কিন্তু, কয়েক মাস না যেতেই স্বপন ইন্ডিয়ান পাসপোর্ট করে দেয়ার আবদার করে। এতে আব্দুল মাকসুদ রাজি হননি। ফলে এক পর্যায়ে ক্ষুব্ধ হয়ে কাউকে না জানিয়ে স্বপন বাড়িতে চলে আসে।

গত ৩ জানুয়ারি আব্দুল মাকসুদের বড় ভাই সেলিম মিয়া মারা যান। মৃত্যুর খবর পেয়ে আব্দুল মাকসুদ পরদিন গ্রামে আসেন। এছাড়া ২২ জানুয়ারি শ্বশুর বাড়ি দেখতে ও বেড়াতে তার স্ত্রী শাহিনা বেগম আসেন। এ সুযোগে ক্ষুব্ধ স্বপন তার বন্ধুদের নিয়ে সোমবার বিকেলে আব্দুল মাকসুদের ওপর হামলা চালিয়ে তাকে বেধড়ক মারপিট করা হয়। খবর পেয়ে তার স্ত্রী শাহিনা বেগম এগিয়ে গেলে তাকেও মারপিট করে আটকে রাখা হয়। পরে তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। বর্তমানে তারা স্বামাী-স্ত্রী দু’জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ঘটনায় আহতের ছোট ভাই সোহেল মিয়া বাদী হয়ে স্বপনকে প্রধান আসামি করে ৯ জনের বিরুদ্ধে ভৈরব থানায় একটি অভিযোগ করেছেন।  

তদন্তকারী র্কমর্কতা ভৈরব থানার এসআই মো. রাসেল মিয়া বলেন, আসামিদের ধরতে পুলিশ অভিযানে নেমেছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ